বিজ্ঞাপন

রাবনাবাদ চ্যানেল ড্রেজিং হলে পায়রা বন্দরে ঢুকবে বাণিজ্যিক জাহাজ

December 3, 2020 | 5:25 pm

স্পেশাল করেসপন্ডেন্ট

ঢাকা: রাবনাবাদ চ্যানেলের ড্রেজিং প্রকল্পটি বাস্তবায়িত হলে সাড়ে ১০ মিটার ড্রাফট বিশিষ্ট বাণিজ্যিক জাহাজ পায়রা বন্দরে প্রবেশ করতে পারবে। এতে বছরে ২০ মিলিয়ন মেট্রিক টন কয়লা বন্দরের নিজস্ব জেটিতে স্থানান্তর এবং বিশ ফুট দীর্ঘ কন্টেইনারবাহী জাহাজ ও ৪০ হাজার টন পণ্যবাহী বাল্ক কার্গো ক্যারিয়ার জাহাজ সরাসরি বন্দরে প্রবেশ করতে পারবে। ফলে বিনিয়োগকারীর দক্ষিণ-পশ্চিমাঞ্চলে শিল্প কারখানা স্থাপনে আগ্রহী হবেন।

বিজ্ঞাপন

বৃহস্পতিবার (৩ নভেম্বর) নৌ-পরিবহন মন্ত্রণালয়ের সভাকক্ষে পায়রা বন্দরের রাবনাবাদ চ্যানেলের মূল ও রক্ষণাবেক্ষণ ড্রেজিং প্রকল্প সংক্রান্ত বৈঠকে এসব তথ্য জানানো হয়। নৌ পরিবহন প্রতিমন্ত্রী খালিদ মাহমুদ চৌধুরী এমপি বৈঠকে সভাপতিত্ব করেন। এ সময় অন্যান্যের মধ্যে মন্ত্রণালয়ের সচিব মোহাম্মদ মেজবাহ উদ্দিন চৌধুরী, পায়রা বন্দর কর্তৃপক্ষের চেয়ারম্যান কমডোর হুমায়ুন কল্লোল, বাংলাদেশ প্রকৌশল বিশ্ববিদ্যালয়ের অধ্যাপক ড. মো. আতাউর রহমান উপস্থিত ছিলেন।

রাবনাবাদ চ্যানেলের দৈর্ঘ্য ৭৫ কিলোমিটার, প্রস্থ ১০০-১২৫ মিটার। পায়রা বন্দরের রাবনাবাদ চ্যানেলের নাব্যতা বাড়ানোর লক্ষ্যে বন্দর কর্তৃপক্ষের সঙ্গে বেলজিয়ামভিত্তিক ড্রেজিং কোম্পানি জান ডি নুলের মধ্যে ১৪ জানুয়ারি ২০১৯ একটি চুক্তি সই হয়েছে।

বিজ্ঞাপন

উল্লেখ্য, প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা ২০১৩ সালের ১৯ নভেম্বর পটুয়াখালীর কলাপাড়ায় দেশের তৃতীয় পায়রা সমুদ্রবন্দর উদ্বোধন করেন। ২০১৬ সালের আগস্টে এর অপারেশনাল কার্যক্রম শুরু হয়। গতকাল (২ ডিসেম্বর) পর্যন্ত পায়রা বন্দরে ১০০টি জাহাজ এসেছে।

সারাবাংলা/জেআর/পিটিএম

বিজ্ঞাপন
বিজ্ঞাপন