বিজ্ঞাপন

শিরোপা উৎসবের অপেক্ষায় গাজী গ্রুপ চট্টগ্রাম

December 17, 2020 | 6:16 pm

স্পেশাল করেসপন্ডেন্ট

জেমকন খুলনা দলে অভিজ্ঞতার ঝনঝনানি ও বরেণ্য সব নাম। শুনবেন? মাশরাফি বিন মুর্তজা, মাহমুদউল্লাহ রিয়াদ, ইমরুল কায়েস, শুভাগত হোম। টি টোয়েন্টি ফর্মেটে যারা মুহুর্তেই ম্যাচের ভাগ্য ঘুড়িয়ে দিতে দারুণ সিদ্ধহস্ত। পক্ষান্তরে গাজী গ্রুপ চট্টগ্রামে এমন নাম খুব একটা নেই। কিন্তু অবিশ্বাস্য হলেও সত্য অনভিজ্ঞ এই দলটিই অভিজ্ঞতায় টইটুম্বর খুলনাকে তিনবারের মোকাবেলায় দুইবারই হারের গ্লানি ‍উপহার দিয়েছে। ফাইনালের মহারণেও এর ব্যতিক্রম ভাবতে চাইছেন না গাজী গ্রুপ দলপতি মোহাম্মদ মিঠুন। শিরোপা নির্ধারণী ম্যাচে আরেকবার দল হিসেবে জ্বলে উঠে মাশরাফি-মাহমুদউল্লাহদের হারের বেদনায় পোড়াতে চাইছেন। চাইছেন শিরোপা উৎসবের আনন্দে মাতোয়ারা হতে।

বিজ্ঞাপন

লিগ পর্ব ও প্লে অফ রাউন্ড শেষে গত পরশু দুই ফাইনালিস্ট পেয়েছে বঙ্গবন্ধু টি টোয়েন্টি কাপ। দুই পর্বের বাঁধা পেরিয়ে ফাইনালে জায়গা করে নিয়েছে গাজী গ্রুপ চট্টগ্রাম ও জেমকন খুলনা। খুলনা অবশ্য প্রথম দল হিসেবেই শিরোপা নির্ধারণী ম্যাচে জায়গা করে নিয়েছে। প্রথম কোয়ালিফায়ারে পয়েন্ট টেবিলের শীর্ষে থাকা গাজী গ্রুপ চট্টগ্রামকে ৪৭ রানে হারিয়ে ফাইনালে উঠে যায় টেবিলের দুইয়ে থাকা মাহমুদউল্লাহ রিয়াদ নেতৃত্বাধীন জেমকন খুলনা। আর মঙ্গলবার বেক্সিমকো ঢাকাকে ৭ উইকেটে উড়িয়ে দ্বিতীয় দল হিসেবে শিরোপা জয়ের লড়াইয়ে শামিল হয় গাজী গ্রুপ চট্টগ্রাম।

প্রতিপক্ষ হিসেবে জেমকন খুলনা কতটা ক্ষুরধার তা চট্টগ্রাম দলপতি ভাল করেই জানেন। তিনি এও ভালো করেই জানেন মহারণের লড়াই জিততে তাকে একা লড়তে হবে মাশরাফি বিন মুর্তজা ও মাহমুদউল্লাহর কৌশলের বিপক্ষে। সঙ্গত কারণেই শিরোপা উৎসবে মাতোয়ারা হতে তাকে নিতে হচ্ছে খুলনা বধের বিশেষ কৌশল।

বিজ্ঞাপন

বৃহস্পতিবার (১৭ ডিসেম্বর) ফাইনালের আগের দিন সন্ধ্যায় সারাবাংলার সঙ্গে একান্তে আলাপকালে তিনি একথা জানান।

মিঠুন বলেন, ‘এই ম্যাচেও আমরা দল হিসেবেই খেলব। তবে আমাদের কৌশল হবে সম্পুর্ণ নতুন। আগের ম্যাচের কোন পরিকল্পনাই এই ম্যাচে দেখা যাবে না। আমাদের আগের ১০টি ম্যাচ এখন অতীত। ওই থেকে শুধু আত্মবিশ্বাসটাই নিব। আর বাদবাকি সবই আমাদের নতুন করে করতে হবে। কালকের ম্যাচে ইচ্ছা বলেন, টিম এফোর্ট বলেন সবার দিক থেকেই একশর বেশি দিব। আমরা চেষ্টা করব আমাদের সেরাটি দিতে।’

বিজ্ঞাপন

ছেড়ে কথা বলবেন না জেমকন খুলনা দলপতি মাহমুদউল্লাহও। কেননা প্রথম কোয়ালিফায়ারে চট্টগ্রামের বিপক্ষে ৪৭ রানের জয়ের স্মৃতি এখনো তাজা। সেই ম্যাচ জয়ের আত্মবিশ্বাস নিয়ে ঝাঁপিয়ে পড়তে চাইছেন মহারণের লড়াইয়ে।

‘তারা খুবই ভালো দল, সবাই জানে যে সৌম্য-লিটন খুব ভালো ব্যাটিং করছে। লিটন এই টুর্নামেন্টের সর্বোচ্চ রান সংগ্রাহক। ওদের বোলিং অ্যাটাক ভালো। তো আমার মনে হয় যে ওদের প্রতি ফোকাস বেশি না করে আমরা আমাদের ফ্রি এবং আমাদের আত্মবিশ্বাসের ওপর যদি বিশ্বাসটা বেশি রাখি তাহলে মনে হয় আমাদের জন্য ভালো হবে এবং দলের জন্যও ভালো।’

বিজ্ঞাপন

শুক্রবার (১৮ ডিসেম্বর) মিরপুর শের ই বাংলা জাতীয় ক্রিকেট স্টেডিয়ামে ম্যাচটি শুরু হবে বাংলাদেশ সময় বিকেল সাড়ে ৪টায়।

সারাবাংলা/এমআরএফ/এসএইচএস

বিজ্ঞাপন
বিজ্ঞাপন
বিজ্ঞাপন