বিজ্ঞাপন

মুশফিক-তামিমদের বিপক্ষে আক্রমণাত্মক হতে চান রোচ

January 15, 2021 | 5:56 pm

স্পেশাল করেসপন্ডেন্ট

বাংলাদেশ-ওয়েস্ট ইন্ডিজের সাদা পোশাকের লড়াইয়ে সর্বোচ্চ উইকেটের মালিক কেমার রোচ। ২০০৯ সালে আন্তর্জাতিক ক্রিকেটে অভিষেক ঘটেছিল এই বাংলাদেশের বিপক্ষেই। রঙিন পোশাকের ক্রিকেটে আসা-যাওয়ার মধ্যে থাকলেও সাদা পোশাকের ক্রিকেটে সেই থেকে ওয়েস্ট ইন্ডিজ দলে রোচের জায়গা প্রায় পাকা। এবার বাংলাদেশে সিরিজ খেলতে এসেছেন বড় এক দায়িত্ব নিয়ে। করোনাভীতির কথা বলে বাংলাদেশ সফর থেকে নাম প্রত্যাহার করে নিয়েছেন ওয়েস্ট ইন্ডিজের একঝাঁক তারকা ক্রিকেটার। যে কয়েকজন অভিজ্ঞ ক্যারিবিয়ান ক্রিকেটার বাংলাদেশ সফরে এসেছেন রোচ তাদের অন্যতম। তাই বাড়তি দায়িত্বই এবার তার কাঁধে। কীভাবে সেই দায়িত্ব পালন করতে চান জানালেন ক্যারিবিয়ান পেসার।

বিজ্ঞাপন

টেস্টে বিদেশি দলগুলোর জন্য বরাবরই স্পিনবান্ধব উইকেট বানায় বাংলাদেশ। ফলে পেসাররা উইকেট থেকে বাড়তি সুবিধা পায় না। এমন উইকেটে পেসারদের কাজটা কঠিনই। রোচ বললেন, মাঠে আক্রমণাত্মক থেকে সেই কাজটা করতে চান তিনি। বাংলাদেশি ব্যাটসম্যানদের বিপক্ষে আক্রমণাত্মক বোলিং করতে চান রোচ।

শুক্রবার (১৫ জানুয়ারি) ভার্চূয়াল আলোচনায় ক্যারিবিয়ান পেসার বলেন, 'সবাই জানি বাংলাদেশের উইকেট সব সময় পেসারদের জন্য কঠিন। তবে আমি যদি পরিকল্পনা ঠিকঠাক প্রয়োগ করতে পারি দলের জয়ে অবদান রাখতে পারবো। আমি মনে করি মাঠে বেশ আক্রমণাত্মক থাকতে হবে। প্রতিপক্ষ ব্যাটসম্যানদের উপর চড়াও হতে হলে। যেহেতু পিচে খুব বেশি বাউন্স থাকবে না। মাঠে পরিকল্পনাটা ঠিকঠাক করতে হবে এবং সেটার প্রয়োগও করতে হবে। আপনাকে এসব ক্ষেত্রে গতির সংমিশ্রণ করতে হবে। সবচেয়ে সহজ বিষয় হল ভালো জায়গায় টানা বল করে যেতে হবে যতটা সম্ভব।'

বিজ্ঞাপন

বাংলাদেশে এসে বরাবরই স্পিনারদের বিপক্ষে ভুগতে হয়েছে ওয়েস্ট ইন্ডিজকে। বাংলাদেশের অভিজ্ঞ ক্রিকেটাররাও সম্প্রতি কম ভোগায়নি ক্যারিবিয়ানদের। ওসব মনে রেখেছেন রোচও। বাংলাদেশের অভিজ্ঞ ক্রিকেটারদের নিয়ে আলাদা পরিকল্পনার কথা জানালেন তিনি।

ক্যারিবিয়ান পেসার বলেন, 'তামিম ইকবাল তাদের অন্যতম অভিজ্ঞ ব্যাটসম্যান। সাকিব ফিরেছে, মুশফিকুর রহিম আছে, তাদের অধিনায়কও (মুমিনুল হক) ভালো ব্যাটসম্যান, মাহমুদউল্লাহ আছে...। বেশ কিছু ভালো নাম আছে তাদের। আমাদের কাজটা ঠিকঠাক করতে হবে।'

বিজ্ঞাপন

রোচ যোগ করেন, 'আমি এবং শ্যান (শ্যানন গ্যাব্রিয়েল) আছি। আমাদের কাজটা করতে হবে, আলজারিও (জোসেফ) আছে। স্পিনারদের সম্ভবত আরও কিছু কাজ করতে হবে। উইকেট দেখে সিদ্ধান্ত নিতে হবে। বোলিং ইউনিটের সাফল্যের জন্য টিম ওয়ার্ক করতে হবে। আর তেমনটা হলেই আমাদের বোলিং ইউনিট ভালোভাবে পরিকল্পনা প্রয়োগ করতে পারবে।

উল্লেখ্য, বাংলাদেশের বিপক্ষে তিনটি ওয়ানডে ও দুটি টেস্ট খেলতে গত ১০ জানুয়ারি ঢাকায় পা রেখেছে ওয়েস্ট ইন্ডিজ ক্রিকেট দল। ওয়ানডে সিরিজের প্রথম ম্যাচটি অনুষ্ঠিত হবে জানুয়ারির ২০ তারিখে।

বিজ্ঞাপন

সারাবাংলা/এমআরএফ/এসএইচএস

বিজ্ঞাপন
বিজ্ঞাপন
বিজ্ঞাপন