বিজ্ঞাপন

সুস্থ্য থাকতে গড়ে তুলুন কিছু অভ্যাস

January 24, 2021 | 12:54 pm

লাইফস্টাইল ডেস্ক

আমরা সবাই সুস্থ্য, সুখী এবং সফল জীবন প্রত্যাশা করি। ব্যস্ত জীবনে আমরা প্রায়ই নিজের সুস্বাস্থ্যের দিকে নজর দেই না। কিন্তু অসুস্থ্যতা আমাদের সুখ এবং সফলতার লক্ষ্যে বাধা হয়ে দাঁড়ায়। তাই প্রতিটি মানুষের জীবনে সুস্থ্য থাকার গুরুত্ব অপরিসীম। সহজ কিছু অভ্যাস মেনেই আপনি নিজেকে সুস্থ রাখতে পারেন।

বিজ্ঞাপন

অবশ্যই নাস্তা করুন

সুস্থ্য থাকতে গড়ে তুলুন কিছু অভ্যাস

বিজ্ঞাপন

বেশকিছু গুরুত্বপূর্ণ কারণে প্রতিদিন সকালের নাস্তা করা খুবই গুরুত্বপূর্ণ। এটি আপনার পরিপাকক্রিয়াকে সারাদিন সচল রাখে এবং দেরি করে বেশি খাওয়া থেকে বিরত রাখে। একটি গবেষণায় দেখা গেছে, যারা নিয়মিত নাস্তা করেন তাদের মধ্যে প্রাপ্তবয়স্করা ভালো কাজ করেন এবং শিশুরা পরীক্ষায় ভালো ফলাফল করেন। ভরপেট নাস্তা না করতে পারলেও সকালে অল্প হলেও স্বাস্থ্যকর খাবার খাওয়ার অভ্যাস করুন।

সারাদিনের খাবারের পরিকল্পনা

বিজ্ঞাপন

সুস্থ্য থাকতে গড়ে তুলুন কিছু অভ্যাস

একটু সময় বের করে নিজের সারাদিনের খাবারের পরিকল্পনা করুন। এটি আপনার সময় এবং টাকা দুটোই বাঁচাবে। যেমন আপনি ওজন কমাতে চাইলে খাবারে চিনি, চর্বি ও কার্বোহাইড্রেট বাদ দিন, প্রোটিন বা ভিটামিন যোগ করুন। সঠিক পরিকল্পনা করলে খাবার তৈরির সময় আপনি এসব বিষয় খেয়াল রাখতে পারবেন। যখন আপনি জানবেন, কখন কি খেতে হবে তখন কাজের ফাঁকে জাঙ্ক ফুড খাওয়া থেকেও নিজেকে বিরত রাখতে পারবেন।

বিজ্ঞাপন

পর্যাপ্ত পানি পান করুন

সুস্থ্য থাকতে গড়ে তুলুন কিছু অভ্যাস

বিজ্ঞাপন

এই অভ্যাসটি আপনার স্বাস্থ্যের জন্য খুবই উপকারি। বেশি করে পানি পান করলে হয়ত আপনার ওজন কমতে পারে, কিন্তু শরীরকে সুস্থ্য রাখতে এটি খুবই জরুরি। চিনিযুক্ত পানীয় মুটিয়ে যাওয়া ও ডায়বেটিকের কারণ হতে পারে। আপনি শুধু পানি পানে অভ্যস্ত না হলে এর সঙ্গে কমলা বা লেবুর রস, তরমুজ, শসা যোগ করতে পারেন।

ব্যায়াম করুন

সুস্থ্য থাকতে গড়ে তুলুন কিছু অভ্যাস

শরীর ও মনকে সুস্থ্য রাখতে প্রতিদিন হাল্কা ব্যায়াম করুন। সপ্তাহে পাঁচবার ৩০ মিনিট করে হাঁটার অভ্যাস গড়ে তুলুন। এটি আপনাকে অনেক রোগব্যাধি থেকে দূরে রাখবে। ৩০ মিনিট না হলেও অল্প করে নিয়মিত হাঁটার অভ্যাস করুন।

নিয়ম করে অফলাইনে থাকুন

সুস্থ্য থাকতে গড়ে তুলুন কিছু অভ্যাস

বর্তমান সময়ে ইন্টারনেট বা ইমেইল, সামাজিক যোগাযোগমাধ্যম আপনার জন্য খুবই গুরুত্বপূর্ণ। কিন্তু দিনরাত অনলাইনে থাকা থেকে নিজেকে বিরত রাখুন। প্রতিদিন একটি নির্দিষ্ট সময়ে অফলাইনে চলে যান। যখন আপনি স্ক্রিন টাইম কমিয়ে আনতে পারবেন, তখন দেখবেন অনেক কাজের জন্য সময় বের করা আপনার জন্য খুবই সহজ হয়ে যাবে। একটু হাঁটুন, বই পড়ুন অথবা পরিবারের অন্য সদস্যদের কাজে সাহায্য করুন বা তাদের সঙ্গে সময় কাটান।

নতুন কিছু শিখুন

সুস্থ্য থাকতে গড়ে তুলুন কিছু অভ্যাস

নতুন নতুন দক্ষতা মানুষের মস্তিষ্ককে সুস্থ্য রাখে। যেমন, নতুন ভাষা শিখতে পারেন, লেখালেখিও শুরু করতে পারেন। মানসিক বিকাশে সাহায্য করে এমন কাজগুলো আপনার বার্ধক্যের লক্ষণগুলোকে ধীরগতি করে।

ধূমপান থেকে বিরত থাকুন

সুস্থ্য থাকতে গড়ে তুলুন কিছু অভ্যাস

আপনি যদি ধূমপায়ী হয়ে থাকেন, তাহলে এখনি এটি ছেড়ে দিন। কারণ এটি আপনার হৃদস্পন্দন এবং রক্তচাপ কমিয়ে দেয়।

পর্যাপ্ত ঘুমান

সুস্থ্য থাকতে গড়ে তুলুন কিছু অভ্যাস

প্রতিদিন ৭ থেকে ৯ ঘন্টা ঘুমানোর অভ্যাস করুন। এই অভ্যাস আপনাকে অনেক বেশি সুস্থ্য থাকতে সাহায্য করবে। রাতে ভালো ঘুম হলে আপনি সারাদিন খুব ভালো মেজাজে থাকবেন এবং কাজে বেশি মনোযোগী হতে পারবেন। ভালো ঘুমের অভ্যাস আপনাকে হৃদরোগের ঝুঁকি থেকে দূরে রাখবে। সবচেয়ে ভালো ফল পাওয়ার জন্য প্রতিদিন রাতে একটি নির্দিষ্ট সময় ঘুমাতে যান এবং সকালে সঠিক সময়ে ঘুম থেকে ওঠে পড়ুন।

রোদে থাকুন

সুস্থ্য থাকতে গড়ে তুলুন কিছু অভ্যাস

প্রতিদিন নিয়ম করে কিছু সময়  রোদে থাকলে আপনার শরীরে ভিটামিন ডি এর পরিমাণ বাড়বে। ভিটামিন ডি আপনার শরীরের হাঁড়, হৃদযন্ত্র এবং মেজাজের জন্য খুবই ভালো। শহুরে যান্ত্রিক জীবনের মাঝেও প্রাকৃতির মাঝে থাকার চেষ্টা করুন।

 

সারাবাংলা/এসএসএস

বিজ্ঞাপন
বিজ্ঞাপন
বিজ্ঞাপন