বিজ্ঞাপন

কঠিন তবে আশা হারাচ্ছে না বাংলাদেশ

February 13, 2021 | 8:56 pm

স্পেশাল করেসপন্ডেন্ট

ঢাকা টেস্টের তৃতীয় দিন শেষে ১৫৪ রানে এগিয়ে ওয়েস্ট ইন্ডিজ। সফরকারীদের হাতে এখনো সাত উইকেট বলে লিড যে বাড়বে তা নিশ্চিত। বড় একটা লিড দাঁড় করাতে পারলে তা পেরুনো বাংলাদেশের জন্য কঠিনই হবে। কারণ মিরপুরের উইকেটে চতুর্থ ইনিংসে ব্যাটিং করা বরাবরই কঠিন কাজ। মেহেদি হাসান মিরাজও সেটা জানেন। তবে আশা হারাচ্ছেন না মিরাজ।

বিজ্ঞাপন

বাংলাদেশি স্পিনিং অলরাউন্ডারের প্রত্যাশা ওয়েস্ট ইন্ডিজের দ্বিতীয় ইনিংস ১৫০-২০০ রানের মধ্যেই থামিয়ে দিবে বাংলাদেশ। তাহলে লিড দাঁড়াবে ২৫০-৩০০। দলে অনেক অভিজ্ঞ ক্রিকেটার আছেন বলে সেই রান তাড়া করে জয়ের আশা দেখছেন মিরাজ।

রোববার (১৩ ফেব্রুয়ারি) ঢাকা টেস্টের তৃতীয় দিনের খেলা শেষে মিরাজ বলেছেন, 'পঞ্চম দিনে ব্যাটিং এবং দ্বিতীয় ইনিংসে ব্যাটিং সব সময় কঠিন। আমাদের লক্ষ্য একটাই যত দ্রুত সম্ভব ওদের অলআউট করা যায়। এই উইকেট রান করা কঠিন হবে। হয়তো প্রথম ইনিংসে রান করা সহজ ছিলো। কিন্তু দ্বিতীয় ইনিংসে সেটি হবে না। আজকেই বল টার্ন করছে, নিচু হচ্ছে। পঞ্চম দিনে সেটা আরও হবে। মিরপুরের উইকেটে শেষের দুইটা দিন ব্যাটিং করা আরও কঠিন হয়ে উঠবে।'

বিজ্ঞাপন

'আমি মনে করি আমরা বোলাররা যদি ওদেরকে ১৫০-২০০ রানরে মধ্যে অলআউট করে দিতে পারি তাহলে সুযোগ তৈরি হবে। তারপরও ৩০০ রান চেস করাটা এই উইকেটে আমাদের জন্য অনেক কঠিন হবে। তবে আমি বিশ্বাস করি, আমাদের দলে সিনিয়র খেলোয়াড়রা আছেন বলে সম্ভব। ক্রিকেট খেলাতে সবই হতে পারে। প্রথম টেস্টে যেটা হয়েছে আমাদের বিপক্ষে। আমরা স্বপ্নেও ভাবিনি ম্যাচটা হেরে যাবো। আমরা ভেবেছি হয় আমরা জিতবো, নয়তো ম্যাচটা ড্র হবে।'

দেশের পক্ষে আজ দ্রুততম একশ টেস্ট উইকেট নেওয়ার রেকর্ড গড়েছেন মিরাজ। সে বিষয়ে বলেছেন, 'আমি ডানহাতি অফস্পিনার হিসেবে দ্রুততম একশো উইকেট পেয়েছি, এটা আমাকে আরও ভালো করতে অনুপ্রেরণা যোগাবে। আমি চেষ্টা করবো, দেশের হয়ে আরও উইকেট নেওয়ার জন্য। যা আমার ক্যারিয়ারের জন্য অনেক ভালো হবে।'

বিজ্ঞাপন

দ্রুততম একশ টেস্ট উইকেট নেওয়া মিরাজ ব্যাটিংয়েও ফর্মে আছেন। চট্টগ্রাম টেস্টে দারুন এক ফিফটি করা তরুণ ক্রিকেটার ঢাকা টেস্টেও পেলেন ফিফটি। বলেছেন, 'আমার স্বপ্ন ক্যারিয়ারটাকে অনেক দূর নিয়ে যেতে। কত উইকেট পাবো, কতো রান করবো এটা তো আগে থেকে বলা সম্ভব নয়। লক্ষ্য কখনো সেটআপ করলে আমার জন্য চাপ হয়ে যায়। যতদিন ক্রিকেট খেলবো, ভালো কিছুই হবে ইনশাল্লাহ।'

সারাবাংলা/এমআরএফ/এসএইচএস

বিজ্ঞাপন
বিজ্ঞাপন
বিজ্ঞাপন