বিজ্ঞাপন

গণটিকা কর্মসূচি বন্ধ নয়, জোরদার করতে হবে: জিএম কাদের

August 24, 2021 | 3:40 pm

স্পেশাল করেসপন্ডেন্ট

‘করোনা প্রতিরোধে গণটিকা কর্মসূচি আর হচ্ছে না’ স্বাস্থ্যমন্ত্রীর এমন ঘোষণায় সাধারণ মানুষের মধ্যে হতাশা ছড়িয়ে পড়েছে জানিয়ে জাতীয় পার্টি চেয়ারম্যান ও বিরোধী দলীয় উপনেতা গোলাম মোহাম্মদ কাদের বলেছেন, বাংলাদেশে গণটিকা কর্মসূচি বন্ধ নয়, আরও জোরদার করতে হবে। পাশাপাশি বিভিন্ন সোর্স থেকে টিকা আমদানিতেও সাফল্য দেখাতে হবে।

বিজ্ঞাপন

মঙ্গলবার (২৪ আগস্ট) এক বিবৃতিতে তিনি এসব কথা বলেন।

বিবৃতিতে বলা হয়, স্বাস্থ্যমন্ত্রী বলেছেন আগামী জানুয়ারি-ফেব্রুয়ারিতে ৮ কোটি মানুষকে টিকার আওতায় আনা হবে। এতে দরকার হবে ১৬ কোটি ডোজ করোনার টিকা। কিন্তু ২৩ আগস্ট-২০২১ পর্যন্ত মোট ২ কোটি ৩৭ লাখ ৪ হাজার ৮৩৭ ডোজ টিকা প্রয়োগ করা হয়েছে। এরমধ্যে প্রথম ডোজ নিয়েছেন ১ কোটি ৬৯ লাখ ৪৮ হাজার ৬২২ জন। আর দ্বিতীয় ডোজ পেয়েছেন ৬৭ লাখ ৫৬ হাজার ২১৫ জন। ফেব্রুয়ারির মধ্যে প্রয়োজন হবে ১৩ কোটি ৬২ লাখ ৯৫ হাজার ১৬৩ ডোজ টিকা। প্রতি মাসে গড়ে অন্তত সোয়া ২ কোটি ডোজ টিকা প্রয়োগ করতে হবে। কিন্তু স্বাস্থ্যমন্ত্রীর বক্তব্যে এই বিপুল সংখ্যক টিকা কখন, কোথা থেকে আসবে এবং কিভাবে প্রয়োগ হবে তা উল্লেখ নেই।

বিজ্ঞাপন

বিবৃতিতে জিএম কাদের আরও বলেন, গণটিকা কর্মসূচি বাস্তবায়ন করে সারা পৃথিবী যখন জীবনযাত্রা স্বাভাবিক করে ফেলেছে, তখন বাংলাদেশের নাম বিশ্বের মধ্যে টিকা প্রয়োগে পিছিয়ে পড়া দেশের তালিকায়। দুঃখজনক সত্য হচ্ছে, এশিয়ার মধ্যেও করোনা টিকা প্রয়োগে বাংলাদেশ পিছিয়ে। তাই করোনা প্রতিরোধে গণটিকা কর্মসূচির বিকল্প নেই।

বিজ্ঞাপন

সারাবাংলা/এএইচএইচ/এএম

বিজ্ঞাপন
বিজ্ঞাপন
বিজ্ঞাপন