বিজ্ঞাপন

ইভ্যালি চমকপ্রদ বিজ্ঞাপন দিয়ে চিট করে: রাষ্ট্রপক্ষ

September 17, 2021 | 5:41 pm

স্টাফ করেসপন্ডেন্ট

ঢাকা: ইভ্যালির বিরুদ্ধে রাষ্ট্রপক্ষে ঢাকা মহানগর পাবলিক প্রসিকিউটর আব্দুল্লাহ আবু রিমান্ড শুনানিতে বলেছেন, ‘গত ২৯ মে ইভ্যালি চমকপ্রদ বিজ্ঞাপন দেয়। সেই বিজ্ঞাপন দেখে এ মামলার বাদী আরিফ বাকের ৩ লাখ ১০ হাজার ৫৯৭ টাকার পণ্য অর্ডার করেন। সাত দিনের মধ্যে তা পৌঁছে দেওয়ার কথা ছিল। তারা সেটা করেনি। অনলাইনে ব্যবসার নাম করে তারা মানুষের কাছ থেকে টাকা নেয়। কিন্তু পণ্য দেয় না, তারা চিট করে।

বিজ্ঞাপন

শুক্রবার (১৭ সেপ্টেম্বর) ঢাকা মেট্রোপলিটন ম্যাজিস্ট্রেট আতিকুল ইসলামের আদালতে রিমান্ড শুনানিতে এসব কথা বলেন তিনি।

এর আগে, তাদেরইভ্যালির প্রধান নির্বাহী কর্মকর্তা (সিইও) মো. রাসেল ও প্রতিষ্ঠানটির চেয়ারম্যান তার স্ত্রী শামীমা নাসরিনকে আদালতে হাজির করে ১০ দিনের রিমান্ড আবেদন করেন মামলার তদন্ত কর্মকর্তা গুলশান থানার উপ-পরিদর্শক (এসআই) মো. ওহিদুল ইসলাম।

বিজ্ঞাপন

এদিন আসামিদের পক্ষে এম মনিরুজ্জামান আসাদ রিমান্ড বাতিল চেয়ে জামিন আবেদন করেন। তিনি বলেন, ‘ইভ্যালি পণ্যের অর্ডার নেয়। এরপর তারা পণ্যটি উৎপাদনের জন্য অন্য কোম্পানির কাছে অর্ডার দেয়। তার নির্দিষ্ট সময়ে অর্ডার কমপ্লিট করতে পারেনি। একারণে ইভ্যালি নির্দিষ্ট সময়ে পণ্য সরবারহ করতে পারেনি। এ মামলার বাদীকে টাকা ফেরত বা পণ্য দেওয়া হবে না, এমনটি কখনও বলা হয়নি। ৩ লাখ গ্রাহকের অর্ডার তারা সরবরাহ করেছে। উৎপাদিত কোম্পানি নির্দিষ্ট সময়ে অর্ডার কমপ্লিট করতে পারেনি। এজন্য আমরা পণ্য সরবরাহ করতে পারিনি।’

শত শত কোটি টাকা গায়েব, সদুত্তর দিচ্ছেন না রাসেল-শামীমা

বিজ্ঞাপন

 

তিনি আরও বলেন, ‘অন্য গ্রাহকের যে অর্ডার রয়েছে তা অবশ্যই সরবরাহ করবো বা পণ্য দিয়ে দিবো। এজন্য তো আমাদের ফ্রি হতে হবে। ফ্রি না হলে কোনো কাস্টমারের অর্ডার তারা সরবরাহ করতে পারবেন না। তাদের ফ্রি করে দেন। এরপর যদি তাদের বিরুদ্ধে কোনো অভিযোগ আসে তাহলে তাদের মামলা চলতে পারে। শামীমা নাসরিনের দুধের বাচ্চা রয়েছে।’ সবকিছু বিবেচনা করে রিমান্ড বাতিল করে জামিন প্রার্থনা করেন এ আইনজীবী।

বিজ্ঞাপন

এরপর রাষ্ট্রপক্ষের আইনজীবী বলেন, ‘তারা পণ্যের জন্য টাকা নিয়েছে। অথচ ৫ মাসেও পণ্য পৌঁছে দিতে পারেনি। টাকা ফেরত চাইলে গেলে হুমকি দিলো। এরকম তারা হাজার হাজার গ্রাহকের টাকা আত্মসাৎ করেছে।’

উভয়পক্ষের শুনানি শেষে আদালত দুই আসামির তিন দিনের রিমান্ডের আদেশ দেন। যা আগামি ৫ কার্যদিবসে শেষ করতে বলা হয়ছে।

বিজ্ঞাপন

সারাবাংলা/এআই/এমও

বিজ্ঞাপন
বিজ্ঞাপন
বিজ্ঞাপন