বিজ্ঞাপন

মায়া অ্যাঞ্জেলো : তবুও আমি উঠে দাঁড়াই

April 4, 2018 | 12:05 pm

||মাকসুদা আজীজ, অ্যাসিস্ট্যান্ট এডিটর||

বিজ্ঞাপন

তুমি আমার কথা ইতিহাসে লিখে রাখতে পারো,
তোমাদের মিথ্যা আর বানানো গল্প মিশিয়ে,
আমাকে ডুবিয়ে রাখতে পারো পঙ্কিলতার সাগরে,
তবুও, ধুলোর মতো আমি উঠে দাঁড়াই।

সকালে গুগল করতে হয় না, এমন মানুষ কি আর এই ধরায় আছে? সকালে উঠতেই কিছু না কিছুর জন্য গুগলে যেতে হয়। এমন গুগল করতে গিয়ে চোখ আটকে যায় এক একটি ডুডলে।

বিজ্ঞাপন

অন্য দিনের মতো নয় আজকের ডুডলটি। ক্লিক করতেই দরাজ কণ্ঠে, দু-তিনজন মিলে আবৃত্তি শুরু করেন, চমৎকার একটি কবিতা, স্টিল আই রাইজ।

মায়া অ্যাঞ্জেলো : তবুও আমি উঠে দাঁড়াই

বিজ্ঞাপন

এই কবিতার লেখক মায়া অ্যাাঞ্জেলোর আজ ৯০ তম জন্ম বার্ষিকী। তবে এই জন্ম বার্ষিকী শুধু একজন কবির নয়। জন্ম বার্ষিকী একটি শক্তির যার নাম মায়া অ্যাাঞ্জেলো।

কে ছিলেন এ মায়া অ্যাাঞ্জেলো, এটা জানার চেয়ে বরং জানা সহজ, কী ছিলেন না মায়া অ্যাঞ্জেলো। তরুণ মায়া অ্যাাঞ্জেলো ছিলেন রাঁধুনি, ছিলেন যৌন কর্মী, কাজ করেছেন নাইট ক্লাবে নর্তকী হিসেবে। শুধু অন্য চারজনের মতো ভেসে যাননি তিনি বৈরী স্রোতে। অ্যাাঞ্জেলু তৈরি করেছেন নিজের শক্তি আর সেই শক্তিতে জেগে উঠেছেন বার বার!

বিজ্ঞাপন

অ্যাাঞ্জেলো কাজ করেছেন কনফারেন্সের কো-অর্ডিনেটর হিসেবে, আফ্রিকা থেকে যখন উপনিবেশ শাসন উঠানো হচ্ছিল তখন অ্যাাঞ্জেলোকে দেখা গিয়েছে একজন সাংবাদিক হিসেবেও।

মায়া অ্যাঞ্জেলো : তবুও আমি উঠে দাঁড়াই

বিজ্ঞাপন

এতেই কি শেষ হয়ে গেলো অ্যাাঞ্জেলোর আলো? না কিছুতেই না। এরপর তিনি কাজ করেছেন অভিনেতা হিসেবে, লেখক হিসবে, পরিচালক হিসেবে, এমনকি বিশ্ববিদ্যালয়ে আমেরিকান স্টাডিজ বিষয়ক শিক্ষকের মতো গুরুত্বপূর্ণ ভূমিকাতেও ছিলেন তিনি।
মার্টিন লুথার কিং এর কথা আমরা কে না জানি। তার আমেরিকায় নাগরিক ও মানবাধিকার প্রতিষ্ঠায় অহিংস আন্দোলনেও ভূমিকা রেখেছেন অ্যাাঞ্জেলো।

টেলিভিশনেও অ্যাাঞ্জেলোর ছিল দুর্দান্ত প্রতাপ। এমন একজন মানুষ যদি তার জীবনের গল্প লেখে সেটা কেন বেস্ট সেলার হবে না বলুন? তার জীবনটাই তো একটা জমজমাট গল্প!

অ্যাাঞ্জেলো তার শৈশব থেকে যৌবন পর্যন্ত সময় নিয়ে সাতটি আত্মজীবনী লিখে। এই আত্মজীবনীর জন্যই আসলে অ্যাাঞ্জেলো এত জনপ্রিয়। তার সাহস তার শক্তি, তার এগিয়ে যাওয়ার প্রত্যয় উদ্দীপ্ত করে মানুষকে। ১৯৬৯ সালে অ্যাাঞ্জেলো প্রথম বইটি প্রকাশিত হয়, নামটিও ঠিক তার মতোই গভীর, আমি জানি কেন খাঁচার পাখি গান গায় ( I Know Why the Caged Bird Sings )।

বইটিতে তার জীবনের দিকগুলোকে প্রথমবারের মতো লোক সম্মুখে নিয়ে আসেন তিনি। তিনি বলেছেন কীভাবে এক পতিত জীবন থেকে তিনি উঠে আসেন সমাজের সকলের গ্রহণযোগ্যতার কাতার। তিনি একজন কৃষ্ণাঙ্গ নারী জীব তার জন্য ছিল অনেক কঠোর। জীবনের অন্ধকার দিকের এই খোলামেলা বক্তব্যের জন্য খোদ আমেরিকাতেই কিছু লাইব্রেরিতে তার বই নিষিদ্ধ করা হয়। তারপরেও থেমে যাননি তিনি।

মহীয়সী এই নারী মৃত্যুবরণ করেন ২০১৪ সালের ২৮ মে, নিজের বাসায়। তার বয়স হয়েছিল ৮৬ বছর। তার নার্স তাকে ঘরের মধ্যে মৃত আবিষ্কার করেন। বয়সের কারণে তিনি অসুস্থ ছিলেন। কিছু অনুষ্ঠানও বাতিল করেছেন। অনেক অনেক যুদ্ধ, অনেক অনেক যুদ্ধ জয়ের গল্পটা শেষ হয় না তার মৃত্যুর মধ্য দিয়ে। তিনি তার যুদ্ধ জীবনের অনুপ্রেরণা দিয়ে যান পরবর্তী প্রজন্মের মানুষদের। যারা পড়বেন তার লেখা।

তার লেখা স্টিল আই রাইজ কবিতাটি রইলো সারাবাংলা পাঠকদের জন্য।

শুভ জন্মদিন মায়া অ্যাাঞ্জেলো।

You may write me down in history
With your bitter, twisted lies,
You may trod me in the very dirt
But still, like dust, I'll rise.
Does my sassiness upset you?
Why are you beset with gloom?
’Cause I walk like I've got oil wells
Pumping in my living room.
Just like moons and like suns,
With the certainty of tides,
Just like hopes springing high,
Still I'll rise.
Did you want to see me broken?
Bowed head and lowered eyes?
Shoulders falling down like teardrops,
Weakened by my soulful cries?
Does my haughtiness offend you?
Don't you take it awful hard
’Cause I laugh like I've got gold mines
Diggin’ in my own backyard.
You may shoot me with your words,
You may cut me with your eyes,
You may kill me with your hatefulness,
But still, like air, I’ll rise.
Does my sexiness upset you?
Does it come as a surprise
That I dance like I've got diamonds
At the meeting of my thighs?
Out of the huts of history’s shame
I rise
Up from a past that’s rooted in pain
I rise
I'm a black ocean, leaping and wide,
Welling and swelling I bear in the tide.
Leaving behind nights of terror and fear
I rise
Into a daybreak that’s wondrously clear
I rise
Bringing the gifts that my ancestors gave,
I am the dream and the hope of the slave.
I rise
I rise
I rise.

সারাবাংলা/এমএ

বিজ্ঞাপন

বিজ্ঞাপন
বিজ্ঞাপন
বিজ্ঞাপন