বিজ্ঞাপন

ভুয়া সচিব আব্দুল কাদের রিমান্ডে

October 28, 2021 | 5:07 pm

স্টাফ করেসপন্ডেন্ট

ঢাকা: জনপ্রশাসন মন্ত্রণালয়ের অতিরিক্ত সচিব পরিচয়দানকারী আব্দুল কাদের বিরুদ্ধে রাজধানীর হাতিরঝিল থানায় দায়ের করা পৃথক দুই প্রতারণার মামলায় সাত দিনের রিমান্ড মঞ্জুর করেছেন আদালত।

বিজ্ঞাপন

বৃহস্পতিবার (২৮ অক্টোবর) শুনানি শেষে ঢাকার মেট্রোপলিটন ম্যাজিস্ট্রেট শহিদুল ইসলামের আদালত এই রিমান্ডের আদেশ দেন। এক মামলায় তিন দিন এবং আরেক মামলায় চার দিনের রিমান্ড মঞ্জুর করেন আদালত।

জলসিঁড়ি প্রকল্পের ওয়ার্ক অর্ডার পাইয়ে দেওয়ার প্রলোভন দেখিয়ে ৪০ লাখ টাকা আত্মসাতের অভিযোগে মনির হোসেন নামে এক ঠিকাদার একটি মামলা দায়ের করেন। ওই মামলায় তার ১০ দিনের রিমান্ড আবেদন করেন ডিবি পুলিশের এসআই (নিরস্ত্র) আশরাফুল ইসলাম।

বিজ্ঞাপন

আরও পড়ুন- ১০ম শ্রেণি পাস কাদের জনপ্রশাসনের ‘অতিরিক্ত সচিব’!

অন্যদিকে জনপ্রশাসন মন্ত্রনালয়ের অতিরিক্ত সচিব না হয়েও কাজ পাইয়ে দেওয়ার নামে প্রতারণা করে ১২ লাখ ১৫ হাজার টাকা আত্মসাতের অভিযোগে আরেকটি মামলা করেন জয়নাল আবেদীন বাবু নামের আরেক ব্যক্তি। এ মামলায় তার সাত দিনের রিমান্ড আবেদন করেন আরেক তদন্ত কর্মকর্তা ডিবি পুলিশের পরিদর্শক মোহাম্মদ জাহিদুল ইসলাম।

বিজ্ঞাপন

শুনানি শেষে আদালত এক মামলা চার দিন এবং আরেক মামলায় তিন দিনের রিমান্ডের আদেশ দেন।

গত ৭ অক্টোবর ঠিকাদার কনস্ট্রাকশনের মালামাল সরবরাহকারী শেখ আলী আকবর প্রতারণা করে ২৩ লাখ ৪০ হাজার টাকা আত্মসাতের অভিযোগে তিন জনের বিরুদ্ধে মামলাটি দায়ের করেন। মামলার বাকি আসামিরা হলেন— আব্দুল কাদেরের স্ত্রী সততা প্রোপার্টিস লি.-এর চেয়ারম্যান ছোয়া এবং ম্যানেজার শহিদুল ইসলাম। এরপর গত ৮ অক্টোবর আব্দুল কাদেরকে গ্রেফতার করে পুলিশ।

বিজ্ঞাপন

আসামি আব্দুল কাদের একজন আন্তর্জাতিক সংঘবদ্ধ প্রতারক চক্রের সক্রিয় সদস্য। তিনি নিজেকে জনপ্রশাসন মন্ত্রণালয়ের অতিরিক্ত সচিব পরিচয় প্রদান করে এবং তার ব্যবহৃত গাড়িতে জনপ্রশাসন মন্ত্রণালয়ের স্টিকার ব্যবহার করে থাকেন।  মানুষকে ঋণ পাস করে দেওয়ার কথা বলে এবং ফ্ল্যাট বিক্রির কথা বলে কোটি কোটি টাকা প্রতারণার মাধ্যমে হাতিয়ে নেন বলে জানা যায়।

সারাবাংলা/এআই/টিআর

বিজ্ঞাপন
বিজ্ঞাপন
বিজ্ঞাপন