বিজ্ঞাপন

৮৪৬ ইউপি নির্বাচন: মধ্যরাতে শেষ নির্বাচনি প্রচারণা

November 10, 2021 | 12:06 am

স্পেশাল করেসপন্ডেন্ট

ঢাকা: ১১ নভেম্বর দশম ইউনিয়ন পরিষদ (ইউপি) নির্বাচনের দ্বিতীয় ধাপে ৮৪৬ ইউপিতে ভোটগ্রহণ অনুষ্ঠিত হবে। এই নির্বাচন শান্তিপূর্ণভাবে সম্পন্ন করতে সব ধরনের প্রস্তুতি নিয়ে রেখেছে নির্বাচন কমিশন (ইসি)। সংশ্লিষ্ট নির্বাচনী এলাকায় মঙ্গলবার (৯ নভেম্বর) দিবাগত মধ্যরাত থেকে পরবর্তী ৫৪ ঘণ্টার জন্য মোটরসাইকেল চলাচল এবং সব ধরণের প্রচারণার ওপর নিষেধাজ্ঞা জারি করেছে কমিশন।

বিজ্ঞাপন

একইসঙ্গে, ভোট গ্রহণ উপলক্ষে ২৪ ঘণ্টার জন্য বন্ধ থাকবে সব ধরনের ইঞ্জিনচালিত যান চলাচল। এই সময় শুধু ইসি অনুমোদিত মোটরসাইকেলসহ অন্যান্য যান চলাচল করতে পারবে।

এ ব্যাপারে ইসির উপ সচিব মো. আতিয়ার রহমান বলেন, স্থানীয় সরকার নির্বাচন আইন অনুযায়ী ভোটগ্রহণ শুরুর ৩২ ঘণ্টা আগে প্রচার কাজ বন্ধ করতে হয়। তাই মঙ্গলবার রাত ১২টার পর থেকে কেউ প্রচারণা চালাতে পারবেন না।

বিজ্ঞাপন

ইসির তরফ থেকে জানানো হয়েছে, নির্বাচন কমিশন কর্মকর্তা, ভোটগ্রহণ কর্মকর্তা, আইন-শৃঙ্খলা রক্ষাকারী বাহিনীর সদস্যদের বহনকারী গাড়ি, মহাসড়কে চলাচলকারী দূরপাল্লার গাড়ি, বন্দর ও জরুরি পণ্যবাহী গাড়ি নিষেধাজ্ঞার আওতামুক্ত থাকবে।

এদিকে, দ্বিতীয় ধাপের ‍নির্বাচনে চেয়ারম্যান পদে ৮১ জন প্রার্থী বিনা প্রতিদ্বন্দ্বিতায় নির্বাচিত হয়েছেন। এসব ইউপির মধ্যে চেয়ারম্যান পদে মনোনয়নপত্র দাখিল করেছিলেন চার হাজার ৭৫ জন। বাছাই ও প্রার্থিতা প্রত্যাহার শেষে প্রতিদ্বন্দ্বিতায় রয়েছেন তিন হাজার ৩১০ জন। সংরক্ষিত মহিলা সদস্য পদে মনোনয়নপত্র দাখিল করেছিলেন ৯ হাজার ৪৯৮ জন। বাছাই ও প্রার্থিতা প্রত্যাহার শেষে প্রতিদ্বন্দ্বিতায় রয়েছেন ৯ হাজার ১৬১ জন। বিনা প্রতিদ্বন্দ্বিতায় নির্বাচিত হয়েছেন ৭৬ জন। সাধারণ সদস্য পদে মনোনয়নপত্র দাখিল করেছিলেন ৩০ হাজার ৮৮৩জন। বাছাই ও প্রার্থিতা প্রত্যাহার শেষে প্রতিদ্বন্দ্বিতায় রয়েছেন ২৮ হাজার ৭৪৭ জন। বিনা প্রতিদ্বন্দ্বিতায় নির্বাচিত হয়েছেন ২০৩ জন প্রার্থী। ইতোমধ্যেই, প্রথম ধাপে ৩৬৯ ইউপিতে নির্বাচন আয়োজন সম্পন্ন করেছে ইসি। তৃতীয় ধাপে ২৮ নভেম্বর এক হাজার তিনটি ইউপিতে নির্বাচন অনুষ্ঠিত হবে।

বিজ্ঞাপন

প্রসঙ্গত, বর্তমানে দেশে ইউনিয়ন পরিষদ চার হাজার ৫৭১টি। এর মধ্যে প্রায় চার হাজার ইউপিতে ভোটগ্রহণ হবে। জটিলতার কারণে বেশকিছু ইউপিতে ভোট গ্রহণ আটকে আছে। দেশ স্বাধীন হওয়ার পর থেকে নয় বার ইউনিয়ন পরিষদ নির্বাচন অনুষ্ঠিত হয়েছে। এর মধ্যে ১৯৭৩ সালে প্রথম ইউপি নির্বাচন এবং সর্বশেষ ২০১৬ সালে নবম ইউপি নির্বাচন অনুষ্ঠিত হয়। এছাড়াও ১৯৭৭, ১৯৮৩, ১৯৮৮, ১৯৯২, ১৯৯৭, ২০০৩, ২০১১ ইউপি নির্বাচন হয়েছে। চলতি ২০২১ সালে জুন জুলাই মাস থেকে শুরু হয়েছে দশম ইউপি নির্বাচন। সর্বশেষ ২০১৬ সালের ১১ ফেব্রুয়ারি প্রথম বারের মতো দলীয় প্রতীকে নবম ইউপি নির্বাচনের তফসিল ঘোষণা করা হয়। ২০১৬ সালের ২২ মার্চ থেকে ৪ জুন পর্যন্ত ছয় ধাপে চার হাজার ২৭৫টি ইউপি নির্বাচন অনুষ্ঠিত হয়।

সারাবাংলা/জিএস/একেএম

বিজ্ঞাপন
বিজ্ঞাপন
বিজ্ঞাপন