বিজ্ঞাপন

লাইভে রক্তাক্ত নারী, অভিযোগ হাসান আরিফের ছেলের বিরুদ্ধে

December 3, 2021 | 8:14 pm

সিনিয়র করেসপন্ডেন্ট

ঢাকা: নিজের ওপর ‘হামলার’ বিবরণ দিয়ে ফেসবুক এসে লাইভ করেছেন মাধবী আক্তার নীলা নামে এক নারী। মিরপুরের রূপনগরের আরামবাগ ৮ নম্বর গেট এলাকায় ওই নারীর বাসা।

বিজ্ঞাপন

শুক্রবার (৩ ডিসেম্বর) ফেসবুক লাইভে ওই নারী অভিযোগ করেন— মোয়াজ এসে তাকে ও তার ছোট মেয়েকে মেরে গেছে। এ সময় মোয়াজের সঙ্গে তার  ‘গুণ্ডারা’ ছিল।

আরামবাগের ওই বাসায় পরিবারের আর কেউ না থাকার সুযোগে ওই নারীর সাবেক স্বামী মোয়াজ আরিফ বাসায় আসেন। মোয়াজের জিম্মায় থাকা তাদের বড় মেয়েকে দিয়ে যাওয়ার নাম করে মোয়াজ লোকজনকে নিয়ে বাসায় ঢোকেন বলে অভিযোগ নীলার।

বিজ্ঞাপন

সাবেক অ্যাটর্নি জেনারেল হাসান আরিফের ছেলে মোয়াজ আরিফ। তার বাবা হাসান আরিফ বিগত তত্ত্বাবধায়ক সরকারের আইন বিষয়ক উপদেষ্টা ছিলেন।

হামলার বর্ণনা দিয়ে মাধবী আকতার নীলা সারাবাংলাকে বলেন, ‘আমাদের মধ্যে দাম্পত্য বিরোধ দেখা দেওয়ার পর আমার বড় মেয়েকে মোয়াজ নিয়ে গেছেন। মেয়েকে বাসায় দিয়ে যাওয়ার নাম করে মোয়াজ সন্ধ্যায় বাসায় আসে। এ সময় মোয়াজের সঙ্গে আরও দুই-তিনজন গুণ্ডা ছিল। আমার বড় মেয়েকে দেয়নি, বরং মোয়াজের লোকজন আমাকে মারধর করেছে।’

বিজ্ঞাপন

নীলার অভিযোগ— বাসায় কোনো লোক ছিল না। এই সুযোগে মোয়াজ এসে আমাদের মেরে গেছে। আমি এর বিচার চাই।

হামলার বিষয়ে জানতে মোয়াজ আরিফের সঙ্গে তার মোবাইল ফোনে যোগাযোগ করা হলে তাকে পাওয়া যায়নি।

বিজ্ঞাপন

তবে রূপনগর থানার ডিউটি অফিসার ওমর সারাবাংলাকে বলেন, ‘আমরা ঘটনাটি শুনেছি। সেখানে আমাদের একটি টিম গেছে। বিস্তারিত জানার চেষ্টা চলছে।’

আরও পড়ুন: সন্তান ফিরে পেতে সাবেক অ্যাটর্নি জেনারেলের পুত্রবধূর রিট

বিজ্ঞাপন

সারাবাংলা/একে

বিজ্ঞাপন
বিজ্ঞাপন
বিজ্ঞাপন