বিজ্ঞাপন

ঢামেক হাসপাতালে জানালার ফাঁকে আটকে পড়া বিড়ালটি অবশেষে উদ্ধার

January 14, 2022 | 5:15 pm

স্টাফ করেসপন্ডেন্ট

ঢাকা: ঢাকা মেডিকেল কলেজ (ঢামেক) হাসপাতালে রাতভর জানালার গ্রিলের ফাঁকে আটকেপড়া বিড়ালটিকে অবশেষে উদ্ধার করল হাসপাতাল কর্তৃপক্ষ। দেড় ঘণ্টার চেষ্টার পরে রড কাটার মেশিন দিয়ে গ্রিল কেটে বিড়ালটিকে অবমুক্ত করা হয়।

বিজ্ঞাপন

শুক্রবার (১৪ জানুয়ারি) সকাল সাড়ে ১০ থেকে সাড়ে ১১ পর্যন্ত দীর্ঘ দেড় ঘণ্টা চেষ্টার পরে আটকে পড়া বিড়ালটিকে উদ্ধার করা সম্ভব হয়।

রাতভর আটকে থাকা বিড়ালটিকে উদ্ধারের সময় উপস্থিত ছিলেন হাসপাতালে আনসারের প্লাটুন কমান্ডার শাহ আলম এর তত্ত্বাবধানে (এপিসি) আশরাফুল ইসলাম। ঢাকা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালের পুলিশ ফাঁড়ির (পরিদর্শক) বাচ্চু মিয়াসহ হাসপাতালে দায়িত্বরত কর্মচারীরা।

বিজ্ঞাপন

তাদের কাছ থেকে জানা যায়, ঢাকা মেডিকেল হাসপাতালে পুরাতন ভবনের নিচতলায় ১০১ নম্বর ওয়ার্ডের প্রবেশের মুখে হাতের বাম দিকে একটি জানালার গ্রিলের ভেতর বিড়ালটির মাথা আটকে থাকে। এরপর থেকেই বিড়ালটি চিৎকার চেঁচামেচি করছিল। অনেকে কাপড় পেঁচিয়ে বিড়ালটিকে বের করার চেষ্টা করেও বিফল হন। পরে শুক্রবার সকালে লোহা কাটার মেশিন এনে গ্রিল কেটে জানালায় আটকে থাকা বিড়ালটিকে অবমুক্ত করা হয়।

হাসপাতালের পরিচালক ব্রিগেডিয়ার জেনারেল মো. নাজমুল হক জানান, হাসপাতালের রোগীদের চিকিৎসা দেওয়া একটি মানবিকতা। কোনো প্রাণী বিপদগ্রস্ত হলেও সেটি উদ্ধার করাও মানবিকতা। যারা বিড়ালটিকে উদ্ধার ও সহযোগিতা করেছে তাদের ধন্যবাদ জানাই।

বিজ্ঞাপন

যেখানে বিড়ালটি আটকে ছিল তার পাশের ওয়ার্ডের লোকজন অনেকেই জানান, রাত থেকে সকাল পর্যন্ত বিড়ালটি চিৎকার চেঁচামেচি করেছে। আমরা অনেকেই কাপড় পেঁচিয়ে বিড়ালের মাথা বের করার চেষ্টা করেছি কিন্তু পারিনি।

হাসপাতালের ওয়ার্ডে ভর্তি রোগীর স্বজন রেখা বেগম জানান, রাত ৯টা থেকে বিড়ালটি আটকে ছিল। রাতেও অনেকে বিড়ালটিকে বের করার চেষ্টা করেছিল। সকালে একজন বিড়ালটিকে রুটি খাইয়েছে

বিজ্ঞাপন

মিরাজুল ইসলাম নামে একজন জানান, সকাল ১১টার দিকে রোগীর লোকজন, আনসার সদস্য ও হাসপাতালের কর্মচারীরা জানলার গ্রিল কেটে বিড়ালটিকে বের করে। প্রথমে বিড়ালের একটি বাচ্চা জানালা দিয়ে ঢোকার পর সেটি দেখে ওই বড় বিড়ালটিও ঢুকতে চেয়েছিল। তখন তার মাথা গ্রিলের ফাঁকে আটকে যায়।

সারাবাংলা/একে

বিজ্ঞাপন
বিজ্ঞাপন
বিজ্ঞাপন