বিজ্ঞাপন

বাসদের প্রথম কংগ্রেস ৪ মার্চ

March 2, 2022 | 1:43 pm

স্পেশাল করেসপন্ডেন্ট

‘শ্রেণিসংগ্রাম বেগবান করো, মেহনতী মানুষের রাষ্ট্র সরকার প্রতিষ্ঠা করো’, এই স্লোগান নিয়ে বাংলাদেশের সমাজতান্ত্রিক দল-বাসদের প্রথম কংগ্রেস আগামী শুক্রবার (৪ মার্চ) দুপুর আড়াইটায় রাজধানীর সোহরাওয়ার্দী উদ্যানে অনুষ্ঠিত হবে। ১৯৮০ সালের ৭ নভেম্বর প্রতিষ্ঠার পর এই প্রথম দলটির কংগ্রেস প্রকাশ্যে অনুষ্ঠিত হতে যাচ্ছে।

বিজ্ঞাপন

কংগ্রেসে বক্তব্য রাখবেন শ্রীলংকা জনতা ভিমুক্তি পেরমুনা দলের সাধারণ সম্পাদক কমরেড সুচিতাদে, সিপিআই লিবারেশন ভারতের কেন্দ্রীয় কমিটি কমরেড ওম শর্মা, নেপালের সিপিএন ও জাতীয় নেতৃবৃন্দ।

দলটির কংগ্রেস সফল করার লক্ষ্যে ঢাকা মহানগরে প্রচার অভিযান ও লিফলেট বিতরণ কার্যক্রম চলছে। এবারের কংগ্রেসে নেতারা ১৩টি প্রস্তাব তুলে ধরবেন বলে জানা গেছে। কংগ্রেসকে সামনে রেখে এসব দাবির পক্ষে ঐক্যবদ্ধ আন্দোলন গড়ে তোলার আহ্বান জানিয়েছে দলটি।

বিজ্ঞাপন

প্রেস বিজ্ঞপ্তিতে প্রকাশিত তাদের দাবিগুলো হলো-
সংখ্যানুপাতিক নির্বাচন চাই, দলনিরপেক্ষ সরকারের অধীনে নির্বাচন চাই (নির্বাচনকালীন সরকারের সদস্যরা কেউ নির্বাচন করতে পারবে না ও পরবর্তীতে রাষ্ট্রের কোনো লাভজনক পদে অধিষ্ঠিত হবেন না)। নির্বাচন কমিশন গঠন বাতিল করে নতুন আইন করতে হবে। কারণ সকল দল বিভিন্ন শ্রেণি পেশা ও বিশেষজ্ঞ নাগরিকদের সঙ্গে মতবিনিময়ের মাধ্যমে অর্থ ছাড়া এই নির্বাচন আইন গঠন করা হয়েছে। শিক্ষাকে বিজ্ঞানভত্তিক সর্বজনীন ও সংবিধানের ১৭(১) মোতাবেক একমুখী করতে হবে। শিক্ষা ও স্বাস্থ্য চিকিৎসা সেবা নিয়ে বাণিজ্য করা যাবে না। শ্রমিকদের ন্যূনতম মজুরি ২০ হাজার টাকা আইন করে বাস্তবায়ন করতে হবে। নারী-পুরুষের মজুরি বৈষম্য দূর করতে হবে। সম্পত্তির উত্তরাধিকারে নারী-পুরুষ বৈষম্য দূর করতে হবে। নারীদের গৃহস্থালি কাজে আর্থিক মূল্য জাতীয় আয়ের অন্তর্ভূক্ত করতে হবে। সারাদেশে উপজেলাসহ প্রধান প্রধান বাজারে কৃষকদের কাছ থেকে সরকারি দামে কৃষিপণ্য ক্রয়ের জন্য ক্রয় কেন্দ্র খুলতে হবে। চাল-ডালসহ নিত্যপ্রয়োজনীয় জিনিসের দাম কমাতে হবে। সিন্ডিকেটের দৌরাত্ম্য বন্ধ করতে হবে। দিনমজুর ক্ষেতমজুর প্রতিষ্ঠানিক শ্রমিক নিম্নবর্তী মধ্যবিত্তদের জন্য গ্রাম শহরে আর্মি রেটে পুরনো রেশনিং ব্যবস্থা চালু করতে হবে। ১৮৬১ সালের ব্রিটিশ বিধানে লাঠিয়াল বাহিনী গঠনের পুলিশ আইন বদল করে পুলিশ বাহিনীকে আইনিভাবে নাগরিক সেবা সুরক্ষার বাহিনীতে পরিণত করতে হবে। আমলাতন্ত্রকে শাসক দলের আজ্ঞাবহ আমলাতন্ত্রের বদলে গণপ্রজাতন্ত্রী রাষ্ট্রের গণসেবা কর্মচারী রূপে দাঁড় করাতে হবে। উন্নয়নের অজুহাতে প্রকৃতি-পরিবেশ জীববৈচিত্র্য ধ্বংস সাধন বন্ধ করতে হবে। পাহাড় নদী বন উজাড় দখল-দূষণ রোধ করতে হবে। ব্যাটারিচালিত রিকশা ভ্যান ইজি বাইকের লাইসেন্স প্রদান করো হয়রানি বন্ধ করুন।

সারাবাংলা/এএইচএইচ/এএম

বিজ্ঞাপন

Tags: ,

বিজ্ঞাপন
বিজ্ঞাপন
বিজ্ঞাপন