বিজ্ঞাপন

অধিনায়ক সাকিবকে সময় দিতে হবে: তামিম

June 5, 2022 | 6:45 pm

স্পোর্টস করেসপন্ডেন্ট

অধিনায়ক মুমিনুল হক পারফর্ম করতে পারছিলেন না। টেস্টে দল হিসেবে অনেকদিন যাবত বাংলাদেশও সাফল্য পাচ্ছিল না। ঠিক এই সময়টাতেই মুমিনুল হকের জায়গায় টেস্ট দলের অধিনায়ক হিসেবে সাকিব আল হাসানকে বেছে নেওয়া হয়েছে। অর্থাৎ বেশ কঠিন সময়েই টেস্ট দলের নেতৃত্ব পেয়েছেন সাকিব। সে হিসেবে হুট করে তার কাছ থেকে বড় সাফল্য প্রত্যাশা সমুচিত নয়। ওয়ানডে দলের অধিনায়ক তামিম ইকবাল বললেন, অধিনায়ক সাকিবকে পর্যাপ্ত সময় দিতে হবে।

বিজ্ঞাপন

এবার তৃতীয় যাত্রায় অধিনায়কত্ব পেয়েছেন সাকিব। ২০০৯ সালে প্রথমবার অধিনায়কের দায়িত্ব পেয়েছিলেন। তামিম ইকবাল ছিলেন তখন সহ-অধিনায়ক। সেবার শৃঙ্খলাভঙ্গের অভিযোগে অব্যহতি দেওয়া হয়েছিল দুজনকেই। ২০১৮ সালে দ্বিতীয় মেয়াদে নেতৃত্ব পান সাকিব। আইসিসির নিষেধাজ্ঞায় পরে সেই যাত্রায় অধিনায়কত্ব হারিয়েছিলেন। এবার তৃতীয় মেয়াদে অধিনায়কত্ব পাওয়া সাকিব দলকে শক্ত অবস্থানে নিয়ে যাবেন তেমন প্রত্যাশা। তামিমের প্রত্যাশা, আগামী ২-৩ বছরের মধ্যে সাকিবের নেতৃত্বে শক্ত একটা অবস্থানে দাঁড়াবে বাংলাদেশ দল।

রোববার (৫ জুন) দুই বছরের জন্য রবির ব্র্যান্ড অ্যাম্বাসেডর হিসেবে চুক্তি স্বাক্ষর করেছেন তামিম। অনুষ্ঠানে সদ্য পাওয়া সাকিবের অধিনায়কত্ব নিয়ে প্রশ্ন করা হলে তামিম বলেন, ‘আমি ওর অধিনায়কত্বের দুবার খেলেছি। এটা রকেট সায়েন্স না। আমরা সবাই জানি তার খুব ভালো ক্রিকেটীয় জ্ঞান আছে। আমি নিশ্চিত টেস্ট দলের অধিনায়কত্ব করা সহজ না। এই একটা সংস্করণে আমাদের ফলটা খুব বেশি আমাদের পক্ষে আসে না।’

বিজ্ঞাপন

অধিনায়ক সাকিবকে সময় দিতে হবে: তামিম

নিজে ওয়ানডে অধিনায়কত্ব পাওয়ার সময়কার অভিজ্ঞতা স্মরণ করিয়ে তামিম বলেন, ‘আমি যখন অধিনায়ক হয়েছি আমি বলেছি যে, আমাকে অনেক সময় দিতে হবে। আমার মনে হয় একই সাকিবের জন্য। তারও লম্বা সময় দরকার। এটা এমন একটি সংস্করণ যেখানে আমরা খুব শক্তিশালীও না। তার নেতৃত্বে দারুণ এবং তার পরিকল্পনা বা সব কিছুই। আমাদের সবার সহযোগিতা থাকলে হয়তো ২/৩ বছরের দারুণ একটি টেস্ট দল হবে।’

বিজ্ঞাপন

চলতি মাসের মাঝামাঝি সময় থেকে ওয়েস্ট ইন্ডিজের বিপক্ষে একটি পূর্নাঙ্গ সিরিজ খেলবে বাংলাদেশ। দুই টেস্ট এবং তিনটি করে ওয়ানডে ও টি-টোয়েন্টি ম্যাচের ওই সিরিজ খেলতে ইতোমধ্যেই দেশ ছেড়েছেন কয়েকজন বাংলাদেশি ক্রিকেটার। ক্যারিবিয়ান দ্বীপপুঞ্জে কেমন খেলবে বাংলাদেশ?

তামিম বলেন, ‘শেষ সিরিজ ভালো ছিল, টেস্ট সিরিজ ছাড়া। ওয়ানডে এবং টি-টোয়েন্টি দুর্দান্ত ছিল। আমার কাছে মনে হয় এটা (ওয়েস্ট ইন্ডিজ) এমন একটা জায়গা যেখানে খুব সহজ না, বিশেষ করে টেস্ট ক্রিকেট খেলা একটু কঠিন। কিন্তু যে পারফরম্যান্স আমরা শেষ সময়ে দিয়েছি, স্পেশালি টেস্টে, নিশ্চিতভাবে আমাদের আরও ভালো দিতে হবে আগের চেয়ে। বাকি দুই ফরম্যাটে আগেরটা ধরে রাখতে চাই।’

বিজ্ঞাপন

সারাবাংলা/এসএইচএস

বিজ্ঞাপন
বিজ্ঞাপন
বিজ্ঞাপন