বিজ্ঞাপন

পদত্যাগ করবেন না বরিস জনসন

July 6, 2022 | 7:03 pm

আন্তর্জাতিক ডেস্ক

ব্রিটেনের প্রধানমন্ত্রীর পদ ছাড়তে অস্বীকৃতি জানিয়েছেন বরিস জনসন। নানা কেলেঙ্কারিতে জর্জরিত সরকারের বিরুদ্ধে সমালোচনার মধ্যে একাধিক গুরুত্বপূর্ণ মন্ত্রীর পদত্যাগে বিক্ষুব্ধ এমপিদের চাপের মুখে নতিস্বীকার করেননি তিনি। বরিস জনসন তার সরকার টিকিয়ে রাখতে লড়াই চালিয়ে যাওয়ার প্রতিজ্ঞা করেছেন বলে জানিয়েছেন।

বিজ্ঞাপন

৫৮ বছর বয়সী কনজারভেটিভ পার্টির এই প্রধানমন্ত্রী বুধবার ব্রিটিশ পার্লামেন্টে তুমুল পক্ষের সদস্যদের তোপের মুখে পড়েন। এর আগে মঙ্গলবার রাতে তার মন্ত্রিসভা থেকে পদত্যাগ করেন অর্থমন্ত্রী ঋষি সুনাক এবং স্বাস্থ্যমন্ত্রী সাজিদ জাভিদ। বুধবার পার্লামেন্টে দুজনই প্রধানমন্ত্রীর সমালোচনা করেন।

পার্লামেন্টে দেওয়া বক্তব্যে তারা বলেছেন, কেলেঙ্কারির সংস্কৃতিকে আর সহ্য করতে পারছেন না তারা। গত কয়েক মাস ধরে ডাউনিং স্ট্রিটে লকডাউন আইন ভঙ্গ করে একাধিক পার্টি করাসহ বিভিন্ন অনিয়ম আর চালিয়ে যাওয়া যায় না।

বিজ্ঞাপন

পার্লামেন্টে বক্তব্য সরকার ও বিরোধীদলীয় বহু এমপি বরিস জনসনকে পদত্যাগের আহ্বান জানান। তবে পদত্যাগের আহ্বান প্রত্যাখ্যান করে বরিস জনসন সাফ জানিয়ে দেন, সত্যি বলতে, কঠিন পরিস্থিতিতে একজন প্রধানমন্ত্রীকে যখন বিশাল ম্যান্ডেট দেওয়া হয় তখন দায়িত্ব চালিয়ে যাওয়াই তার কাজ, এবং আমি সেটাই করতে যাচ্ছি।

উল্লেখ্য যে, মাত্র এক মাস আগে আস্থা ভোটে অল্পের জন্য উৎরে গিয়েছিলেন বরিস জনসন। সেসময় বরিস জনসন ৩৫৯ জন কনজারভেটিভ এমপির মধ্যে মাত্র ২১১ জনের সমর্থন পেয়েছিলেন। তার বিপক্ষে পড়েছে ১৪৮ ভোট। ওই আস্থা ভোটের ডাক দিয়েছিলেন বরিস জনসনের নিজ দলের ৫৪ জন পার্লামেন্ট সদস্য।

বিজ্ঞাপন

সারাবাংলা/আইই

বিজ্ঞাপন

Tags:

বিজ্ঞাপন
বিজ্ঞাপন
বিজ্ঞাপন