বিজ্ঞাপন

ওয়াসার এমডির ‘খায়েশ’ পূরণ হলো না

July 7, 2022 | 10:12 pm

সিনিয়র করেসপন্ডেন্ট

ঢাকা: মার্কিন যুক্তরাষ্ট্রে গিয়ে ভার্চুয়ালি অফিস করতে চেয়েছিলেন ঢাকা ওয়াসার ব্যবস্থাপনা পরিচালক (এমডি) প্রকৌশলী তাকসিম এ খান। তবে বৃহস্পতিবার (৭ জুলাই) বোর্ড সভায় এই প্রস্তাব নাকচ হয়ে গেছে। ফলে ছুটি নিয়েই যুক্তরাষ্ট্রে যেতে হবে তাকে।

বিজ্ঞাপন

ঢাকা ওয়াসার বোর্ড সদস্য ও বাংলাদেশ ফেডারেল সাংবাদিক ইউনিয়নের (বিএফইউজে) মহাসচিব দীপ আজাদ সারাবাংলাকে বলেন, ‘ওয়াসার এমডি তাকসিম খান মার্কিন যুক্তরাষ্ট্রে বসে ভার্চুয়ালি অফিস করতে চেয়েছিলেন। বোর্ড সভায় এ বিষয়টি এজেন্ডায় ছিল। তাকসিম খানের এই প্রস্তাব নাকচ হয়েছে। তবে তার ছুটি মঞ্জুর হয়েছে।’

বোর্ড সভায় বলা হয়-ঢাকা ওয়াসার এমডি প্রকৌশলী তাকসিম এ খানের ব্যক্তিগত কারণে ছুটির প্রয়োজন হলে তিনি ছুটি নিতে পারবেন। এক্ষেত্রে ঢাকা ওয়াসার উপ-ব্যবস্থাপনা পরিচালককে (ডিএমডি) দায়িত্ব দিয়ে যেতে হবে। যদিও এ ব্যাপারে বৈঠকে ভিন্নমত পোষণ করেন ওয়াসার এমডি।

বিজ্ঞাপন

বৈঠক সূত্রে জানা যায়, বৃহস্পতিবার বিকাল ৩টায় ভার্চুয়াল মাধ্যমে ঢাকা ওয়াসার বোর্ড সভা শুরু হয়। বৈঠক শেষ হয় বিকেল সাড়ে ৬টায়। ঢাকা ওয়াসার এমডি সভায় ২০ ভাগ পানির মূল্য বৃদ্ধির বিষয়ে প্রস্তাব উত্থাপন করেন। এই প্রস্তাব ঢাকা ওয়াসার বোর্ড সদস্যরা নাকচ করেন।

পরে ঢাকা ওয়াসা বোর্ড চেয়ারম্যান প্রকৌশলী ড. গোলাম মোস্তফা ৫ ভাগ মূল্য সমন্বয়ের প্রয়োজন বাড়ানোর পক্ষে সম্মতি দিলে বোর্ড সদস্যরা তা মেনে নেন।

বিজ্ঞাপন

বোর্ড সভার একপর্যায়ে এজেন্ডায় আসে ওয়াসার এমডির ভার্চুয়ালি অফিস প্রসঙ্গ। এ সময় বোর্ড সভার কেউ কেউ বিব্রত বোধ করেন। নিজের খায়েশ পূরণের জন্য এক ঘণ্টা ধরে নানা যুক্তিও তুলে ধরেন তাকসিম এ খান। এ প্রস্তাবের পক্ষে বেশিরভাগ সদস্য দ্বিমত পোষণ করেন। এমডি চাইলে ছুটি নিতে পারেন- এমন প্রস্তাবে সায় দেন বোর্ড সভার সদস্যরা।

এর আগে ২০২১ সালের ২৫ এপ্রিল থেকে ২৪ জুলাই পর্যন্ত তিন মাস ভার্চুয়াল অফিসের অনুমতি নিয়ে যুক্তরাষ্ট্রে যান ঢাকা ওয়াসার এমডি। তিন মাসের অনুমতি নেওয়া থাকলেও সেখানে থেকে চার মাস ভার্চুয়াল অফিস করেন তিনি। এবারও ভার্চুয়ালি অফিস করার সুযোগ চাইছিলেন তিনি।

বিজ্ঞাপন

সারাবাংলা/একে

বিজ্ঞাপন
বিজ্ঞাপন
বিজ্ঞাপন