বিজ্ঞাপন

চকবাজারে আগুন: হোটেলে ঘুমিয়ে ছিলেন ৪/৫ জন, মিলছে না খোঁজ

August 15, 2022 | 4:32 pm

সিনিয়র করেসপন্ডেন্ট

ঢাকা: রাজধানীর চকবাজারে অগ্নিকাণ্ডের শিকার বরিশাল হোটেলের ভেতর ঘুমিয়ে ছিলেন অন্তত চার/পাঁচজন। ফায়ার সার্ভিস দুই ঘণ্টা চেষ্টার পর আগুন নিয়ন্ত্রণে এনেছে। তবে হোটেলের ভেতর ঘুমিয়ে থাকা ওই চার/পাঁচজনের হদিস মিলছে না।

বিজ্ঞাপন

চকবাজার থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) আব্দুল কাইয়ুম জানিয়েছেন, হোটেলের ভেতরে সবকিছু পুড়ে গেছে। মানুষের হাড় পোড়া সদৃশ কিছু দেখা গেছে।

তিনি বলেন, ‘আমার উদ্ধার কার্যক্রম চালাচ্ছি। পুরো প্রক্রিয়া শেষ হলে বলতে পারব ভেতরে কী হয়েছে। তবে দুই একজন মিসিং হয়েছে বলে শুনেছি।’

বিজ্ঞাপন

সোমবার (১৫ আগস্ট) দুপুর ১২টায় চকবাজারে বরিশাল হোটেলের গ্যাস লাইন থেকে আগুনের সূত্রপাত হয় ফায়ার সার্ভিস প্রাথমিকভাবে জানতে পেরেছে। ফায়ার সার্ভিসের ১০টি ইউনিট চেষ্টা চালিয়ে আগুন নিয়ন্ত্রণে আনে।

চকবাজারে আগুন: হোটেলে ঘুমিয়ে ছিলেন ৪/৫ জন, মিলছে না খোঁজ

বিজ্ঞাপন

ফায়ার সার্ভিসের ডিরেক্টর অপারেশন লেফটেন্যান্ট কর্নেল জিল্লুর রহমান বলেন, ‘দুপুর ২টা ১০ মিনিটের দিকে আগুন নিয়ন্ত্রণে আসে। এখন ক্ষয়ক্ষতি নিরূপনের কাজ চলছে।’

জিল্লুর রহমান বলেন, ‘তিন তলা বিশিষ্ট টিনশেড ভবনের নিচতলায় খাবার হোটেল রয়েছে। ওই হোটেলের গ্যাস লাইন থেকে প্রথমে আগুন লাগে। এরপর ওই আগুন ওপরে পলিথিন ও খেলনা কারখানায় ছড়িয়ে পড়ে।’

বিজ্ঞাপন

এদিকে আগুন নিয়ন্ত্রণে আসার খবর পেয়ে ঘটনাস্থলে আসতে শুরু করেন নিখোঁজ ব্যক্তিদের স্বজনরা।

রুবেল নামে একজন সারাবাংলাকে জানান, তার খালাতো ভাই ওসমান এই হোটেলের কর্মচারী ছিলেন। হোটেলের ওপরে ফলস ছাদ বানিয়ে তার খালাতো ভাই ঘুমুতেন। আজ বন্ধের দিন হওয়ায় ওসমান হোটেলের ভেতরে ওই ছাদে ঘুমিয়ে ছিলেন।

বিজ্ঞাপন

রুবেল বলেন, ‘আগুন লাগার খবর পেয়ে ওসমানকে ফোন করি। কিন্তু তার ফোন বন্ধ পাই। এরপর আমি ঘটনাস্থলে আসি। ভেতরে গিয়ে দেখি সব পুড়ে গেছে। হাড়জাতীয় কিছু দেখতে পেয়েছি।’

চকবাজারে আগুন: হোটেলে ঘুমিয়ে ছিলেন ৪/৫ জন, মিলছে না খোঁজ

রুবেল আরও বলেন, ‘চার বছর ধরে ওসমান এই হোটেলে কাজ করতেন। ওসমানের সঙ্গে আরও চার/পাঁচজন থাকতেন। তাদের কী অবস্থা হয়ে তা বলতে পারছি না।’

আব্দুল্লাহ নামে আরেকজন একজন দাবি করেন, তার শ্যালক বিল্লাল এই হোটেলে ঘুমাতেন। গতকাল নাইট ডিউটি শেষ করে সে হোটেলের ভেতরে ঘুমিয়ে ছিল। বিল্লালেরও খোজ মিলছে না।

আব্দুল্লাহ জানান বিল্লালের বাড়ি বরিশালে।

ঘটনাস্থলে উপস্থিত সারাবাংলার এই প্রতিবেদক জানান, আগুনের কারণে পুড়ে যাওয়া মালামাল অপসারণ করা হচ্ছে। পাশাপাশি আটকে থাকা ধোঁয়া বের করার চেষ্টা চলছে।’

সারাবাংলা/ইউজে/একে

বিজ্ঞাপন
বিজ্ঞাপন
বিজ্ঞাপন