বিজ্ঞাপন

মৃত্যুর কাছে হেরে গেলেন ঐন্দ্রিলা

November 20, 2022 | 2:33 pm

এন্টারটেইনমেন্ট ডেস্ক

দীর্ঘ লড়াইয়ের পর, সকলের প্রার্থনাকে বিফল করে চলে গেলেন ভারতীয় বাংলা সিরিয়াল ‘জিয়ন কাঠি’খ্যাত নায়িকা ঐন্দ্রিলা শর্মা। ১ নভেম্বর ব্রেন স্ট্রোক হয় অভিনেত্রীর। এরপরই তাকে কলকাতার একটি বেসরকারি হাসপাতালে ভর্তি করা হয়। করা হয় অপারেশনও। কিন্তু সংক্রমণ বাড়তে থাকায় তাকে ভেন্টিলেশনে রাখা হয়। মাঝে কদিন সুস্থতার দিকে এগোলেও শেষ পর্যন্ত লড়াইটা হেরেই গেলেন ঐন্দ্রিলা। গত বুধবার তার কার্ডিয়াক অ্যারেস্ট হয় পর পর দু’বার। মাঝে খবর ছড়িয়ে যায় যে তিনি আর নেই। তখন তার বন্ধু সব্যসাচী জানান, এই খবর মিথ্যে। শুক্রবার তার অবস্থার কিছুটা উন্নতি হলেও শনিবার ফের অ্যাটাক। ১০ বার কার্ডিয়াক অ্যারেস্ট হয় অভিনেত্রীর। এরপরই আর শেষ রক্ষা করা গেল না। রোববার (২০ নভেম্বর) চলে গেলেন সকলকে কাঁদিয়ে। খবর ভারতীয় সংবাদমাধ্যমের।

বিজ্ঞাপন
মৃত্যুর কাছে হেরে গেলেন ঐন্দ্রিলা
সব্যসাচী চৌধুরীই শেষ দিন পর্যন্ত তার পাশে থেকেছেন। ভালোবাসায়, যত্নে ভালো রাখার চেষ্টা করেছেন ঐন্দ্রিলাকে
বিজ্ঞাপন

প্রথমে ২০১৫ সালে মারণ রোগ ক্যানসার থাবা বসায় তার শরীরে। তারপর ২০২১ আরও একবার তিনি ক্যানসার আক্রান্ত হন। দুইবার ক্যানসারকে হারিয়ে, কেমোথেরাপি করিয়ে সুস্থ হয়ে ওঠেন। কাজে ফেরেন। একাধিক ওয়েব সিরিজ, সিনেমায় অভিনয় করেন। কিন্তু তারপরই আচমকা তার ব্রেন স্ট্রোক। সেখানেও লড়ছিলেন তিনি। তবে লড়াইটা তার আর জেতা হল না।

মৃত্যুর কাছে হেরে গেলেন ঐন্দ্রিলা

বিজ্ঞাপন

‘ঝুমুর’ নামে একটি বাংলা সিরিয়াল দিয়ে অভিনয় জগতে পা রাখেন ঐন্দ্রিলা। এই সিরিয়ালেই তার বিপরীতে দেখা গিয়েছিল ভারতীয় বাংলা সিরিয়ালের আরেক অভিনেতা ‘বামাখ্যাপা’ খ্যাত সব্যসাচী চৌধুরীকে। এই সব্যসাচী চৌধুরীই শেষ দিন পর্যন্ত তার পাশে থেকেছেন। ভালোবাসায়, যত্নে ভালো রাখার চেষ্টা করেছেন ঐন্দ্রিলাকে। ঐন্দ্রিলার সঙ্গে তিনিও লড়াই করছিলেন। কিন্তু নিয়তির বোধহয় অন্য কিছু ইচ্ছে ছিল।

সারাবাংলা/এএসজি

বিজ্ঞাপন
বিজ্ঞাপন
বিজ্ঞাপন