বিজ্ঞাপন

‘রাশিয়া ও পশ্চিমের দ্বন্দ্ব হাইব্রিড যুদ্ধেই সীমাবদ্ধ নয়’

January 23, 2023 | 6:41 pm

আন্তর্জাতিক ডেস্ক

রাশিয়া ও পশ্চিমা বিশ্বের মধ্যকার দ্বন্দ্বকে আর ‘হাইব্রিড যুদ্ধ’ বলা যাবে না বলে মন্তব্য করেছেন রুশ পররাষ্ট্রমন্ত্রী সের্গেই ল্যাভরভ। তিনি বলেন, ‘এটি এখন আর কেবল হাইব্রিড যুদ্ধে সীমাবদ্ধ নয়, প্রকৃত যুদ্ধের কাছাকাছি।’  দক্ষিণ আফ্রিকা সফররত ল্যাভরভ সোমবার ৯২৩ জানুয়ারি) এক সংবাদ সম্মেলনে এ মন্তব্য করেন।

বিজ্ঞাপন

ল্যাভরভ এমন এক সময় এ মন্তব্য করেছেন যখন কিয়েভে ট্যাঙ্ক পাঠানোর জন্য ব্যাপক তৎপরতা শুরু করেছে পশ্চিমা দেশগুলো। সোমবার পোল্যান্ড ইউক্রেনে জার্মান লিওপার্ড-২ ট্যাংক পাঠানোর ঘোষণা দিয়েছে।

পোল্যান্ডের প্রধানমন্ত্রী মোরাউইকি বলেছেন, ইউক্রেনে লিওপার্ড-২ যুদ্ধ ট্যাঙ্ক পাঠানোর জন্য প্রস্তুত দেশগুলোর একটি জোট তৈরি করছে পোল্যান্ড।

বিজ্ঞাপন

ন্যাটো বহির্ভূত দেশ, অর্থাৎ ইউক্রেনে এ অস্ত্র পাঠানোর জন্য ট্যাঙ্ক তৈরিকারী জার্মানির সম্মতির প্রয়োজন ছিল। এদিকে সোমবার জার্মানি জানিয়েছে, তারা নিজে ইউক্রেনে ট্যাঙ্ক পাঠানোর সিদ্ধান্ত না নিলেও পোল্যান্ডকে এ কাজে বাঁধা দেবে না। যুক্তরাষ্ট্রসহ পশ্চিমা শক্তিগুলোর অব্যাহত চাপে জার্মানি এ সিদ্ধান্ত নিয়েছে।

পশ্চিমের এমন তৎপরতায় হুঁশিয়ারি দিয়ে মস্কো বলছে, ইউক্রেনে ট্যাঙ্ক পাঠালে বিপর্যয়কর পরিণতির জন্য প্রস্তুত থাকতে হবে পশ্চিমা বিশ্বকে।

বিজ্ঞাপন

রাশিয়ার ডেপুটি পররাষ্ট্রমন্ত্রী সের্গেই রিয়াবকভ সোমবার বলেছেন, আমরা অনেকবার বলেছি যে, যুদ্ধের তীব্রতা বৃদ্ধি সবচেয়ে বিপজ্জনক পথ। এর পরিণতি অনাকাঙ্ক্ষিত হতে পারে। আমাদের সংকেত পশ্চিম শোনছে না, বরং রাশিয়ার প্রতিপক্ষরা বারবার (ইউক্রেনের পক্ষে) বাজি ধরছে।

ইউক্রেনের কর্মকর্তারা কয়েক মাস ধরে পশ্চিমা মিত্রদের কাছে তাদের জার্মান তৈরি আধুনিক ট্যাঙ্ক চেয়ে আসছেন। কিন্তু জার্মানি এসব ট্যাঙ্ক যুদ্ধক্ষেত্রে পাঠাতে রাজি হয়নি। ন্যাটোভুক্ত অন্যান্য যেসব দেশে এই ট্যাঙ্ক আছে সেসব দেশকেও ইউক্রেনে ট্যাঙ্ক পাঠাতে অনুমতি দেয়নি বার্লিন। তবে সোমবার বার্লিন পোল্যান্ডকে এ কাজে বাঁধা দেবে না বলে জানিয়েছে।

বিজ্ঞাপন

প্রতিরক্ষা বিশেষজ্ঞরা মনে করছেন, রাশিয়ার বিরুদ্ধে আগামী মাসগুলোর যুদ্ধে ইউক্রেনের জন্য উপযুক্ত অস্ত্র হতে পারে এসব ট্যাঙ্ক।

সারাবাংলা/আইই

বিজ্ঞাপন
বিজ্ঞাপন
বিজ্ঞাপন