বিজ্ঞাপন

যাত্রাবাড়ীতে যুবককে কুপিয়ে হত্যা

January 24, 2023 | 3:43 pm

স্টাফ করেসপন্ডেন্ট

ঢাকা: রাজধানীর যাত্রাবাড়ী থানার কুতুবখালি এলাকায় দুর্বৃত্তদের ধারালো অস্ত্রের আঘাতে ইমরান (২৬) নামে এক যুবক নিহত হয়েছেন। এ ঘটনায় মো. সিদ্দিক (২৫) ও শাহাদত হোসেন (৩২) নামের দুইজন আহত হয়েছেন। তাদেরকে ঢাকা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছে।

বিজ্ঞাপন

সোমবার (২৩ জানুয়ারি) রাত সাড়ে ১১টার দিকে কুতুবখালী কাঁচামালের আড়তে এ ঘটনা ঘটে। আহত অবস্থায় তিনজনকে ঢাকা মেডিকেল কলেজ (ঢামেক) হাসপাতালে নিয়ে গেলে চিকিৎসক রাত সোয়া ১২টার দিকে ইমরানকে মৃত ঘোষণা করেন।

আহতদের হাসপাতালে নিয়ে আসা কুতুবখালি ট্রাক স্ট্যান্ডের শ্রমিক নেতা মাসুদ রানা জানান, আহত ও নিহত টেম্পু সাট্যান্ডের লাইন ম্যানের কাজ করে। রাতে তারা তিনজন কুতুবখালী কাঁচামালের আড়তে চা খাচ্ছিলো। এ সময় ১৫ থেকে ২০ জন যুবক অতর্কিত ধারালো অস্ত্র নিয়ে তাদের তিনজনের ওপর হামলা চালায়। আহত তিনজনকে হাসপাতালে নিয়ে আসলে ইমরানকে চিকিৎসক মৃত ঘোষণা করেন।

বিজ্ঞাপন

আহত সিদ্দিক জানান, তারা টেম্পু স্ট্যান্ডে লাইন ম্যানের কাজ করে। রাতে তারা আড়তের ভেতর চা খাচ্ছিলেন। এ সময় ১৫ থেকে ২০ জন ধারালো অস্ত্র দিয়ে কুপিয়ে পালিয়ে যায়।

কুতুবখালী আড়তের কাচামাল ব্যবসায়ী আব্দুল কুদ্দুস জানান, স্থানীয় চাঁদাবাজ আলআমিন ও উজ্জল মোল্লার দুই গ্রুপের মধ্যে মারামারি হয়। এ সময় দুই গ্রুপের সন্ত্রাসীরা যাকে সামনে আড়তের ভেতরে যাকে পেয়েছে তাকেই কুপিয়েছে।

বিজ্ঞাপন

ঢাকা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালের পুলিশ ফাঁড়ির ইনচার্জ (পরিদর্শক) মো. বাচ্চু মিয়া জানান, যাত্রাবাড়ী থেকে ধারালো অস্ত্রের আঘাতে তিনজনকে হাসপাতালে নিয়ে আসলে ইমরান নামে একজন মারা যায়। তার শরীরের বিভিন্ন জায়গায় ধারালো অস্ত্রের আঘাত রয়েছে। আহত দুইজনের মধ্যে সিদ্দিকের মাথায় ও শরীরে এবং শাহাদতের নিতম্বে অস্ত্রের আঘাত আছে। জরুরি বিভাগে তাদের চিকিৎসা চলছে।

যাত্রাবাড়ি থানার ওসি (তদন্ত) আজহারুল ইসলাম জানান, কুতবখালী ট্রাক স্ট্যান্ডে দুই গ্রুপের মধ্যে মারামারির ঘটনা ঘটেছে। এতে একজন মারা গেছেন এবং দুইজন আহত হয়েছেন। ঘটনাটির তদন্ত চলছে।

বিজ্ঞাপন

সারাবাংলা/এসএসআর/ এনইউ

বিজ্ঞাপন

বিজ্ঞাপন
বিজ্ঞাপন
বিজ্ঞাপন