বিজ্ঞাপন

বিক্রেতার ‘ইচ্ছেমতো’ দামে বিক্রি হচ্ছে সয়াবিন তেল

May 5, 2023 | 9:54 pm

সিনিয়র করেসপন্ডেন্ট

ঢাকা: বিক্রেতাদের ইচ্ছেমতো চলছে ভোজ্যতেলের বাজার। বিক্রেতারা ইচ্ছেমত সয়াবিন তেলের দাম রাখছেন। বাজারে এখনও নতুন রেটের বোতলজাত সয়াবিন তেল আসেনি। প্রায় প্রতিটি দোকানে মজুদ রয়েছে আগের রেটের সয়াবিন তেল। বিক্রেতারা এসব তেল বোতলের গায়ের রেটে বিক্রি করছেন। কেউ কেউ গায়ের রেটের চেয়েও বেশি দাম নিচ্ছেন। আবার কেউ বা পুরোনো রেটেই সয়াবিন তেল বিক্রি করছেন। সব মিলিয়ে যার কাছ থেকে যত রাখায় যায়, সেভাবেই রাখা হচ্ছে সয়াবিন তেলের দাম।

বিজ্ঞাপন

শুক্রবার (৫ মে) রাজধানীর কারওয়ান বাজারসহ কয়েকটি বাজার ঘুরে এমন চিত্র দেখা গেছে।

রাজধানীর কারওয়ান বাজারে মেসার্স বিসমিল্লাহ ট্রেডার্সের মালিক আব্দুর রহমান বলেন, ‘আমরা কিছু কিছু বোতল পুরান দামে বিক্রি করছি। আবার নতুন দামেও বিক্রি করছি। তীর ৫ লিটার এখনও ৮৮০ টাকা বিক্রি করছি।’

একই বাজারের ‘মায়ের দোয়া স্টোরে’র কর্মচারী বাবলু বলেন, ‘সয়াবিন তেল আগের রেটে বিক্রি করছি। দোকানে এখনও পুরাতন সয়াবিন তেল রয়ে গেছে। নতুন করে কিনে আনলে দাম বাড়িয়ে দিতে হবে। সব জায়গায় নতুন রেটের সয়াবিন তেল আসতে দুই তিন দিন লাগবে।’

বিজ্ঞাপন

‘রাব্বি এন্টারপ্রাইজে’র কর্মচারী আল আমিন বলেন, ‘৫ লিটার সেনা সয়াবিন তেল এখন ৯০০ টাকা বিক্রি করছি। আগে ৮৮০ টাকা বিক্রি করতাম। এখন ২০ টাকা বাড়িয়ে দিয়েছি। কারও কারও কাছ থেকে গায়ের রেট ৯০৫ টাকাও নিচ্ছি।’

মেসার্স সালমান ট্রেডার্সের কর্মচারী লুকমান সারাবাংলাকে বলেন, ‘সয়াবিন তেল আজ এক কার্টন কিনেছি। তাই নতুন দামে বিক্রি করতে হচ্ছে। যদিও তেলের গায়ের রেট পুরোনো। আমরাও পুরোনো গায়ের রেটেই নিচ্ছি। ৫ লিটার তেল গতকালও ৮৮০ টাকা বিক্রি করলেও, আজকে ৯০৬ টাকা বিক্রি করতে হচ্ছে। গায়ের দামে বিক্রি করতে কোনো সমস্য নেই। গায়ের দামের চেয়ে বেশি বিক্রি করা যাবে না।‘

আলী স্টোরের কর্মচারী মো. আলী বলেন, ‘বোতলজাত এক লিটার সয়াবিন তেলের গায়ের দাম ১৮৬ টাকা। কারও কাছে তা ১৯০ টাকা বিক্রি করছি। ভাঙতি দিলে ১৮৫ টাকাও বিক্রি করছি। নতুন রেটের মাল আসেনি। পুরোনো তেল যেমন পারি, তেমন দামে বিক্রি করছি।’

বিজ্ঞাপন

রাজধানীর মহাখালীর বউবাজারে কথা হয় ভাই ভাই স্টোরের মালিক আব্দুর রহিমের সঙ্গে। তিনি সারাবাংলাকে বলেন, ‘শুনেছি তেলের দাম বেড়েছে। তবে নতুন রেটের সয়াবিন তেল বাজারে আসেনি। আসতে দুই/এক দিন লাগতে পারে। আমরা আগের দামেই সয়াবিন তেল বিক্রি করছি।’

শাহীনবাগের মনিহারি দোকানদার পনু সারাবাংলাকে বলেন, ‘আগের দামেই সয়াবিন তেল বিক্রি হচ্ছে। নতুন রেটের সয়াবিন তেল এলে নতুন দামে বিক্রি হবে।’

উল্লেখ্য, লিটারে ১২ টাকা বাড়িয়ে নতুন সয়াবিন তেলের দাম নির্ধারণ করা হয়েছে ১৯৯ টাকা। নতুন মূল্য অনুযায়ী এখন থেকে প্রতি লিটার খোলা সয়াবিন ১৭৬ টাকা, প্রতি লিটার বোতলজাত সয়াবিন তেল ১৯৯ টাকা, পাঁচ লিটারের বোতলজাত সয়াবিন তেল ৯৬০ টাকা।

এছাড়াও প্রতি লিটার পাম সুপার খোলা সয়াবিন তেল ১৩৫ টাকায় বিক্রি হবে। বৃহস্পতিবার (৪ মে) থেকেই নতুন দাম কার্যকর হয়েছে। দাম বাড়ার কারণ ব্যাখ্যায় বলা হয়েছে, ভোজ্যতেলের আমদানিতে সরকারের ভ্যাট অব্যাহতির মেয়াদ ৩০ এপ্রিল শেষ হওয়ায় বাংলাদেশ ভেজিটেবল অয়েল রিফাইনার্স অ্যান্ড বনস্পতি ম্যানুফেকচারার্স অ্যাসোসিয়েশন, বাণিজ্য মন্ত্রণালয় ও বাংলাদেশ ট্যারিফ কমিশনের সঙ্গে আলোচনা করে দাম বাড়ানো হয়েছে।

বিজ্ঞাপন

সারাবাংলা/ইএইচটি/এমও

Tags: ,

বিজ্ঞাপন
বিজ্ঞাপন
বিজ্ঞাপন