সোমবার ২৭ জানুয়ারি, ২০২০ ইং

ঝলমলে শাড়ি আর জমকালো পাঞ্জাবী- ঈদে প্রথম পছন্দ

জুন ১, ২০১৮ | ১:৩০ অপরাহ্ণ

রাজনীন ফারজানা।।

বিজ্ঞাপন

ঈদে শাড়ি আর পাঞ্জাবীর আবেদন কোনদিন শেষ হয়ে যাবে না। এবারের ঈদেও এই দুইটি পোশাকই প্রাধান্য পাবে।
যেহেতু গরম পড়েছে খুব, তাই বেশিরভাগ ক্রেতাই হয়ত বেছে নেবেন আরামদায়ক কাপড়। এজন্য সুতিই প্রথম পছন্দ। আবার ঈদ বলে জমকালো কাপড় ও ডিজাইনও চাই। সেই চাহিদাও পূরণ করবে দেশি কাপড়। সিল্ক কিংবা মসলিনের মত প্রাকৃতিক তন্তুর কাপড়ে আরাম আছে, আবার তা জমকালো ভাবটিও আনবে।

বিজ্ঞাপন

ঈদ উপলক্ষে সারাবাংলার বিশেষ ফটোশ্যুটে বেছে নেওয়া হয়েছে হাতের কাজের সিল্কের শাড়ি, সিল্ক ও সুতির পাঞ্জাবী।

ভ্যাপসা গরমে আরামদায়ক কাপড় বেছে নিলেও উৎসব মাথায় রেখে রঙ বাছাইয়ে স্বাধীনতা আছে। তবে চোখে আরাম হবে এমন রঙ বেছে নেওয়াই শ্রেয়।  রেশম গুঁটির সুতা দিয়ে বোনা রেশমি বা সিল্ক আমাদের ইতিহাস ও ঐতিহ্যের সাথে মিশে আছে। ঈদে সিল্কের আবেদন সবসময় অনেক। সিল্ক জমিনের শাড়ির পাড় অথবা আঁচল বা কুঁচিতে নেট কিংবা মসলিন যোগ করে আনা হচ্ছে নতুনত্ব। তাতে জমকালো ভাবটা জমছে ভাল। আবার সুতার কাজের সাথে চুমকি আর পাথর দিয়ে উৎসবের শাড়ি তৈরি হচ্ছে।

বাজারে বিদেশি কাপড়ে ভারি এমব্রয়ডারির দিকে বেশিরভাগ ক্রেতার নজর থাকলেও হাতের কাজের আবেদনও কম না। নকশি কাঁথা শুধু জসীমউদ্দীনের বইয়ের পাতাতেই আটকে নেই, পোশাকে নকশি কাঁথার নকশা এখন আমাদের কাছে পরম আদরের। একসময় সাদা কাঁথায় রঙিন সুতায় বাঙালি মেয়েরা ফুটিয়ে তুলত হাসি আনন্দ, ঘরকন্যার দৃশ্য, ফুল, পাখি, লতাপাতা। সেই নকশাই এখন উঠে আসছে এগারো হাত জমিনের সিল্ক, সুতি, মসলিন শাড়িতে।

শাড়ির সাথে গয়না বাছাইয়ে মনোযোগ দিলেই আপনি হয়ে যাবেন একেবারে উৎসব রেডি। ঈদের শাড়িটির সাথে পরতে পারেন বড় একটা দুল। সেক্ষেত্রে গলায় মালা বা নেকলেস না পরলেও চলে। অথবা জমকালো একটি নেকলেসেই পূর্ণ হতে পারে ঈদের সাজ। ঈদের দিনে একটু আধটু মেকাপ সবাই নেয়। তবে মাথায় রাখতে হবে ভ্যাবসা গরমের কথা। এই ঈদের সাজে চোখ আর ঠোঁটকেই প্রাধান্য দিন।

ঈদে পাঞ্জাবী কেনেন না, এমন পুরুষ নেই। পাঞ্জাবীর ডিজাইন, ফেব্রিক আর কাটে নানারকম পরীক্ষানিরীক্ষা হচ্ছে। সুতি পাঞ্জাবীর চাহিদাই সবচেয়ে বেশি। একরঙা পাঞ্জাবীর গলায় ও হাতায় ডিজাইন তো পাওয়া যায়ই এখন নিরীক্ষা হচ্ছে প্রিন্টে।

সুতি বা সিল্ক- সব পাঞ্জাবীতেই পাওয়া যাচ্ছে নানারকম প্রিন্ট। স্লিম ফিট কিংবা রেগুলার- বেছে নিতে পারেন নিজের বয়স, রুচি ও পছন্দ অনুযায়ী।

তবে দিনে পরার জন্য সুতি পাঞ্জাবী কিনলেও রাতের জন্য জমকালো সিল্কের পাঞ্জাবীই এনে দেবে উৎসবের আনন্দ।

মডেল - নীল, রথী, বর্ষা, তনয় (ফিচার ফটো বাম থেকে ডানে) 

আলোকচিত্র - আশীষ সেনগুপ্ত

শাড়ি ও গহনা - বিবিয়ানা

পাঞ্জাবী - অঞ্জনস ও লা রিভ

মেকআপ - জারা'স বিউটি লাউঞ্জ 

লোকেশন - নস্টালজিক ক্যাফে

 

সারাবাংলা/আরএফ/এসএস/আরএফ

বিজ্ঞাপন
বিজ্ঞাপন
বিজ্ঞাপন
বিজ্ঞাপন