Ad

বিজ্ঞাপন

ঢাকা-১৮ ও সিরাজগঞ্জ-১ আসনের উপনির্বাচন আজ

November 12, 2020 | 12:02 am

স্পেশাল করেসপন্ডেন্ট

ঢাকা: ঢাকা-১৮ ও সিরাজগঞ্জ-১ সংসদীয় আসনের উপনির্বাচন আজ বৃহস্পতিবার (১২ নভেম্বর)। দুই আসনেই সব ভোটকেন্দ্রে ইলেকট্রনিক ভোটিং মেশিনের (ইভিএম) মাধ্যমে ভোট নেওয়া হবে। ভোটগ্রহণ চলবে সকাল ৮টা থেকে একটানা বিকেল ৪টা পর্যন্ত।

Ad

বিজ্ঞাপন

নির্বাচন কমিশন জানিয়েছে, দুই আসনেই ভোটগ্রহণের যাবতীয় প্রস্তুতি শেষ। এরই মধ্যে ঢাকা-১৮ ও সিরাজগঞ্জ-১ নির্বাচনি এলাকার কেন্দ্রে কেন্দ্রে পৌঁছে গেছে নির্বাচনি সরঞ্জাম। এছাড়াও নির্বাচনে আইনশৃঙ্খলা রক্ষায় এলাকায় টহল জোরদার করেছে বিজিবি, র‌্যাব ও পুলিশ।

গত ১৩ জুন সাবেক স্বাস্থ্যমন্ত্রী মোহাম্মাদ নাসিমের মৃত্যুতে জাতীয় সংসদের সিরাজগঞ্জ-১ সংসদীয় আসনটি শূন্য হয়। অন্যদিকে ৯ জুলাই সাবেক স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী সাহারা খাতুনের মৃত্যুতে ঢাকা-১৮ আসনটি শূন্য হয়।

Ad

বিজ্ঞাপন

বিধি অনুযায়ী কোনো সংসদীয় আসন শূন্য হওয়ার ৯০ দিনের মধ্যে নির্বাচন আয়োজন করতে হয়। তবে দুর্যোগ বা কোনো অনিবার্য কারণে সেই সময়ে নির্বাচন আয়োজন না করতে পারলে পরবর্তী ৯০ দিনের মধ্যে নির্বাচন আয়োজনের সাংবিধানিক বাধ্যবাধকতা রয়েছে। করোনাভাইরাসের কারণে প্রথম ৯০ দিনের মধ্যে নির্বাচন আয়োজন করা সম্ভব না হওয়ায় পরবর্তী ৯০ দিনের মধ্যে নির্বাচন আয়োজনের বাধ্যবাধকতা পূরণে গত ২৮ সেপ্টেম্বর এই দুই আসনের উপনির্বাচনের তফসিল ঘোষণা করে নির্বাচন কমিশন।

তফসিল অনুযায়ী এরই মধ্যে দুই আসনে প্রতিদ্বন্দ্বীদের প্রার্থিতা নিশ্চিত হয়েছে। নির্বাচনি প্রচারণাও শেষ হয়েছে। নির্বাচন উপলক্ষে মঙ্গলবার যানবাহন চলাচলে বিধিনিষেধ সম্পর্কিত প্রজ্ঞাপনও জারি করে ইসি। এতে বলা হয়েছে, ভোটগ্রহণের জন্য বুধবার (১১ নভেম্বর) দিবাগত মধ্যরাত ১২টা থেকে বৃহস্পতিবার (১২ নভেম্বর) দিবাগত মধ্যরাত ১২টা পর্যন্ত নির্বাচনি এলাকায় ট্রাক ও পিকআপভ্যান চলাচলে নিষেধাজ্ঞা থাকবে। অন্যদিকে মঙ্গলবার দিবাগত মধ্যরাত ১২টা থেকে শুক্রবার (১৩ নভেম্বর) দিবাগত মধ্যরাত ১২টা পর্যন্ত নির্বাচনি এলাকায় মোটরসাইকেল চলাচলে নিষেধাজ্ঞা থাকবে।

ইসির সিনিয়র সচিব মো. আলমগীর বলেন, নির্বাচন সুষ্ঠু ও শান্তিপূর্ণভাবে সম্পন্ন করতে সব ধরনের প্রস্তুতি নিয়েছে কমিশন। নির্বাচনে যেকোনো ধরনের অপ্রীতিকর ঘটনা এড়াতে আইনশৃঙ্খলা বাহিনী প্রস্তুত রয়েছে। ভোটাররা যেন নির্ভয়ে ভোট দিতে পারেন, সেজন্য নির্বাচন কমিশন থেকে যাবতীয় ব্যবস্থা নেওয়া হয়েছে।

ঢাকা উত্তর সিটি করপোরেশনের (ডিএনসিসি) ১, ১৭, ৪৩, ৪৪, ৪৫, ৪৬, ৪৭, ৪৮, ৪৯, ৫০, ৫১, ৫২, ৫৩ ও ৫৪ নম্বর ওয়ার্ড এবং বিমানবন্দর এলাকা নিয়ে ঢাকা-১৮ আসন গঠিত। আসনটিতে ১৪টি ওয়ার্ডে মোট ২১৭টি কেন্দ্রের ১ হাজার ৩৫৩টি কক্ষে ভোটগ্রহণ অনুষ্ঠিত হবে। মোট ভোটার  ৫ লাখ ৭৭ হাজার ১৮৮ জন। এর মধ্যে পুরুষ ভোটার ২ লাখ ৯৬ হাজার ১৩৫ জন, নারী ভোটার ২ লাখ ৮১ হাজার ৫৩ জন।

এই আসনে ছয় জন প্রার্থী প্রতিদ্বন্দ্বিতা করছেন। প্রার্থীরা হলেন— আওয়ামী লীগের মো. হাবীব হাসান, বিএনপির এসএম জাহাঙ্গীর হোসেন, গণফ্রন্টের কাজী মো. শহীদুল্লাহ, জাতীয় পার্টির মো. নাসির উদ্দিন সরকার, বাংলাদেশ কংগ্রেসের মো. ওমর ফারুক ও প্রগতিশীল গণতান্ত্রিক দল (পিডিপি) মো. মহিবুল্লাহ বাহার।

সিরাজগঞ্জ-১ আসনটি কাজীপাড়া উপজেলা ও সিরাজগঞ্জ সদর উপজেলার মেছড়া, রতনকান্দি, বাগবাটি, ছোনগাছা ও বহুলী ইউনিয়ন নিয়ে গঠিত। এই আসনে মোট ১৬টি ইউনিয়নে ১০৪টি ভোটকেন্দ্রের ৭২১টি ভোটকক্ষে ভোটগ্রহণ অনুষ্ঠিত হবে। আসনটিতে মোট ভোটার সংখ্যা ৩ লাখ ৪৫ হাজার ৬০৩ জন। এর মধ্যে পুরুষ ভোটার ১ লাখ ৭১ হাজার ৬৪১ জন, নারী ভোটার ১ লাখ ৭৩ হাজার ৯৬২ জন।

এই আসনের উপনির্বাচনে প্রতিদ্বন্দ্বী প্রার্থী মাত্র দু’জন। প্রয়াত মোহাম্মদ নাসিমের আসন হিসেবে পরিচিত আসনটিতে নৌকা প্রতীকে প্রতিদ্বন্দ্বিতা করছেন তারই ছেলে তানভীর শাকিল জয়। আর বিএনপি থেকে ধানের শীষ প্রতীক নিয়ে দাঁড়িয়েছেন মো. সেলিম রেজা।

সারাবাংলা/জিএস/টিআর

Ad

বিজ্ঞাপন

Ad

বিজ্ঞাপন

Ad

বিজ্ঞাপন

Ad