বিজ্ঞাপন

ঘূর্ণিঝড় ইয়াস’র প্রভাব থেকে ফসল রক্ষায় কৃষি মন্ত্রণালয়ের পরামর্শ

May 24, 2021 | 5:14 pm

স্পেশাল করেসপন্ডেন্ট

ঢাকা: পূর্ব-মধ্য বঙ্গোপসাগর ও তৎসংলগ্ন এলাকায় অবস্থানরত গভীর নিম্নচাপটি উত্তর-উত্তরপশ্চিম দিকে অগ্রসর ও ঘণীভূত হয়ে একই এলাকায় ঘূর্ণিঝড় ইয়াস-এ পরিণত হয়েছে বলে জানিয়েছে আবহাওয়া অধিদফতর। এর প্রভাবে আগামী ২৫ থেকে ২৭ মে পর্যন্ত বাংলাদেশের ৩০টি জেলায় ঝড়ো হাওয়াসহ হালকা থেকে অতি ভারি বৃষ্টিপাতের সম্ভাবনা রয়েছে।

বিজ্ঞাপন

এ অবস্থায়, ঘূর্ণিঝড়ের ক্ষতির হাত থেকে ফসলকে রক্ষার জন্য পরামর্শ দিয়েছে কৃষি সম্প্রসারণ অধিদফতর। সোমবার (২৪ মে) কৃষি মন্ত্রণালয় থেকে পাঠানো সংবাদ বিজ্ঞপ্তিতে এ তথ্য জানানো হয়।

সেখানে বলা হয়, আগামী দুই দিন দেশের উপকূলীয় ৩১ জেলা-সাতক্ষীরা, খুলনা, বাগেরহাট, পিরোজপুর, ঝালকাঠি, পটুয়াখালী, বরগুনা, বরিশাল, ভোলা, চুয়াডাঙ্গা, যশোর, ঝিনাইদহ, কুষ্টিয়া, মাগুরা, মেহেরপুর, নড়াইল, রাজবাড়ী, ফরিদপুর, মাদারীপুর, গোপালগঞ্জ, মানিকগঞ্জ, শরীয়তপুর, চাঁপাইনবাবগঞ্জ, জয়পুরহাট, নওগাঁ, নাটোর, পাবনা, রাজশাহী, সিরাজগঞ্জ, বগুড়ার উপর দিয়ে হালকা ঝড়ো হাওয়া ও বৃষ্টিপাত হওয়ার সম্ভাবনা রয়েছে। এই পরিস্থিতি থেকে ফসল রক্ষা করতে পরামর্শ পালনে কৃষকদের প্রতি নির্দেশনা দেওয়া হয়েছে।

বিজ্ঞাপন

নির্দেশনায় বলা হয়েছে, বোরো ধান ৮০% পরিপক্ব হয়ে গেলে দ্রুত সংগ্রহ করে ফেলতে হবে। সংগ্রহ করা ফসল পরিবহন না করা গেলে মাঠে গাদা করে পলিথিন শিট দিয়ে ঢেকে রাখতে হবে যেন ঝোড়ো হাওয়া ও ভারি বৃষ্টিপাতের কারণে ক্ষতি না হয়। দ্রুত পরিপক্ব সবজি ও ফল বিশেষ করে আম ও লিচু সংগ্রহ করে ফেলতে হবে। সেচ, সার ও বালাইনাশক প্রয়োগ থেকে বিরত থাকতে হবে।

নির্দেশনায় আরও বলা হয়, দণ্ডায়মান ফসলকে পানির স্রোত থেকে রক্ষার জন্য বোরো ধানের জমির আইল উঁচু করে দিতে হবে। নিষ্কাশন নালা পরিষ্কার রাখতে হবে যেন জমিতে পানি জমে না থাকতে পারে। খামারজাত সকল পণ্য নিরাপদ স্থানে রাখতে হবে। আখের ঝাড় বেঁধে দিন, কলা ও অন্যান্য উদ্যানতাত্বিক ফসল এবং সবজির জন্য খুঁটির ব্যবস্থা করা লাগবে।পুকুরের চারপাশ জাল দিয়ে ঘিরে দিতে হবে যেন ভারি বৃষ্টিপাতে পানিতে মাছ ভেসে না যায়। গবাদি পশু ও হাঁস-মুরগী শুকনো ও নিরাপদ জায়গায় রাখতে হবে।

বিজ্ঞাপন

সারাবাংলা/জেআর/এসএসএ

বিজ্ঞাপন
বিজ্ঞাপন
বিজ্ঞাপন