বিজ্ঞাপন

মেয়র রেজাউলের বিরুদ্ধে ফেসবুকে স্ট্যাটাস, থানায় জিডি

June 22, 2022 | 10:34 pm

স্পেশাল করেসপন্ডেন্ট

চট্টগ্রাম ব্যুরো : চট্টগ্রাম নগরীতে জলাবদ্ধতা নিয়ে ক্ষোভ প্রকাশ করে সিটি করপোরেশনের মেয়র রেজাউল করিম চৌধুরীর বিরুদ্ধে ফেসবুকে স্ট্যাটাস দেওয়ায় সাবেক এক ছাত্রলীগ নেতার বিরুদ্ধে থানায় সাধারণ ডায়েরি (জিডি) দায়ের হয়েছে।

বিজ্ঞাপন

মঙ্গলবার (২১ জুন) রাতে চট্টগ্রাম নগর স্বেচ্ছাসেবক লীগের পদপ্রত্যাশী মো. জাবেদুল ইসলাম জাবেদ নগরীর কোতোয়ালী থানায় জিডি দায়ের করেন।

জিডিতে যার বিরুদ্ধে অভিযোগ আনা হয়েছে, তিনি হলেন কেন্দ্রীয় ছাত্রলীগের সাবেক সহ সম্পাদক ইয়াসির আরাফাত। তিনি ২০২১ সালে অনুষ্ঠিত সিটি করপোরেশন নির্বাচনে নগরীর ৩১ নম্বর আলকরণ ওয়ার্ড থেকে কাউন্সিলর পদে প্রতিদ্বন্দ্বিতা করে পরাজিত হন।

বিজ্ঞাপন

কোতোয়ালী থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) জাহিদুল কবীর সারাবাংলাকে বলেন, ‘মেয়র মহোদয়ের বিরুদ্ধে ফেসবুকে অশোভন কথাবার্তা লেখায় একটি জিডি আমরা পেয়েছি। আদালতের নির্দেশক্রমে তদন্তপূর্বক আইনগত ব্যবস্থা গ্রহণ করা হবে।’

জিডিতে অভিযোগ করা হয়, ইয়াসির আরাফাত ফেসবুকে নিজের আইডি থেকে মেয়র রেজাউল করিম চৌধুরীর ছবি ব্যবহার করে লিখেন, ‘একজন অথর্ব মেয়র এর কারণে চট্টগ্রামের মানুষ দুর্ভোগে’। এই পোস্টে সাধারণ মানুষ মেয়র সম্পর্কে বিরূপ মন্তব্য করেন। আওয়ামী লীগের বিরুদ্ধে অপপ্রচারের কুমানসে তিনি মেয়রের ছবি ব্যবহার করে অথর্ব শব্দ ব্যবহার করে মিথ্যা তথ্য উল্লেখ করেন বলে জিডিতে অভিযোগ করা হয়েছে।

বিজ্ঞাপন

এতে আশঙ্কা করা হয়েছে, ভবিষ্যতে ইয়াসির আরাফত মেয়রের ছবি ব্যবহার করে আরও গুজব সৃষ্টির মাধ্যমে অস্থিতিশীল পরিস্থিতি সৃষ্টি করতে পারেন এবং মেয়রের বড় ধরনের ক্ষতিসাধন করতে পারেন।

উল্লেখ্য, গত শুক্রবার (১৭ জুন) থেকে তিনদিনের টানা বৃষ্টিতে চট্টগ্রাম নগরীর নিচু এলাকাগুলো পানিবন্দি হয়ে পড়ে। বৃষ্টির সঙ্গে জোয়ারের কারণে প্লাবিত হয়ে পড়ে বিস্তির্ণ এলাকা। খোদ নগরীর বহদ্দারহাটে মেয়র রেজাউল করিম চৌধুরীর বাসভবন চারদিন ধরে পানিবন্দি অবস্থায় ছিল। এসময় পানিবন্দি মানুষ বাসা থেকে বেরিয়ে গন্তব্যে পৌঁছাতে নৌকা ব্যবহারের দৃশ্যও দেখা গেছে নগরীতে।

বিজ্ঞাপন

এর মধ্যে গত ২০ জুন রাত ১১ টা ২২ মিনিটে ফেসবুকে ইয়াসির আরাফাতের আইডি থেকে মেয়র রেজাউল করিম চৌধুরীর ছবিসহ একটি স্ট্যাটাস দেখা যায়। প্রথমে জিডিতে উল্লেখ করা মন্তব্যসহ স্ট্যাটাসটি দেখা গেলেও পরে সেটি আর পাওয়া যায়নি। এর স্থলে লেখা আছে, ‘মেয়র এর দায়িত্ব পালনে ব্যর্থতার পরিচয় দিবেন না আপনার কারণে চট্টগ্রামের মানুষ দূর্ভোগে।’ ওই স্ট্যাটাসে বুধবার রাত ৯টা পর্যন্ত ৭৮৫টি লাইক ও ২৬২টি মন্তব্য আছে। শেয়ার হয়েছে ১৬টি। মন্তব্যের অধিকাংশই মেয়রের বিরুদ্ধে ক্ষোভ প্রকাশ করে দেয়া হয়েছে। তবে কাউকে কাউকে মেয়রের পক্ষাবলম্বনও করতে দেখা গেছে।

জানতে চাইলে ইয়াসির আরাফাত সারাবাংলাকে বলেন, ‘বৃষ্টিতে পানি উঠে শহরের মানুষ কষ্ট পাচ্ছে। একজন নগরবাসী হিসেবে আমি তো চাইব, আমাদের মেয়রটা মানুষের কাছে আসুক, মানুষকে সহানুভূতি জানাক। উনি আমাদের দলীয় মেয়র প্রার্থী ছিলেন, মাননীয় প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার প্রার্থী ছিলেন। আমরা দলের কর্মী হিসেবে মাথার ঘাম পায়ে ফেলে উনাকে জয়ী করেছি। কিন্তু উনি মানুষের দুর্ভোগে মানুষের পাশে নেই। সাধারণ মানুষের কষ্ট দেখে ক্ষোভ থেকে আমি স্ট্যাটাসটা দিয়েছিলাম।’

বিজ্ঞাপন

সারাবাংলা/আরডি/একে

বিজ্ঞাপন
বিজ্ঞাপন
বিজ্ঞাপন