বিজ্ঞাপন

যে কারণে তাসকিন বাইরে, শান্ত ওপেনিংয়ে

July 14, 2022 | 8:49 am

স্পোর্টস করেসপন্ডেন্ট

অনেকদিন পর বাংলাদেশ ক্রিকেট দলে স্বস্তির হাওয়া। টানা ব্যর্থতার বৃত্তে বন্দি বাংলাদেশ ওয়েস্ট ইন্ডিজের বিপক্ষে তিন ম্যাচ ওয়ানডে সিরিজের প্রথম দুই ম্যাচই জিতল। কাল দ্বিতীয় ওয়ানডেতে ক্যারিবিয়ানদের ৯ উইকেটের বড় ব্যবধানে হারিয়ে সিরিজ জয় নিশ্চিত করেছে তামিম ইকবালের দল। তবে ম্যাচে তামিমের নেওয়া দুটি সিদ্ধান্তে হয়তো চোখ কপালে উঠেছে অনেকেরই!

বিজ্ঞাপন

দুর্দান্ত বোলিং করতে থাকা তাসকিন আহমেদ ছিলেন না দ্বিতীয় ওয়ানডের একাদশে। তারপর ব্যাটিংয়ের সময় নিয়মিত ওপেনার লিটন দাসের বদলে নাজমুল হোসেন শান্তকে নিয়ে ইনিংসের সূচন করতে নামেন তামিম। অবশ্য দুটি পরিবর্তনই কাজে লেগেছে।

তামিমের বদলে একাদশে সুযোগ পাওয়া স্পিনিং অলরাউন্ডার মোসাদ্দেক হোসেন সৈকত কাল দুর্দান্ত বোলিং করেছেন। বাংলাদেশকে প্রথম ব্রেকথ্রু এনে দেওয়া মোসাদ্দেক ১০ ওভারে মাত্র ৩৭ রান খরচ করেছেন। আর লিটনের বদলে ওপেনিংয়ে নামা শান্তর সঙ্গে তামিমের শুরুর জুটি হয়েছে ৪৮ রানের, যেটা স্পিনবান্ধব উইকেটে রান তাড়ায় বড় ভূমিকা রেখেছে।

বিজ্ঞাপন

ম্যাচ শেষে দুই পরিবর্তনের ব্যাখ্যা দিয়েছেন তামিম। সাকিব আল হাসানের অনুপস্থিতিতে স্পিনবান্ধব উইকেটে একজন বাড়তি স্পিনিং অলরাউন্ডারের প্রয়োজন মনে করাতেই বলি হতে হয়েছে তাসকিনকে বলেছেন তামিম, ‘তাসকিনের বাদ পড়াটা খুবই দূর্ভাগ্যজনক। ও খুবই ভালো বোলিং করছে। কিন্তু কাল (পরশু) যখন উইকেট দেখতে এলাম, আমাদের মনে হয়েছে দলে হয়তো একজন বাড়তি স্পিনার দরকার। সঙ্গে একটা বাড়তি ব্যাটসম্যান থাকলেও ভালো হয়। এই উইকেটে পর পর দুটি উইকেট হারানো যাবে না। বল খুব বেশি স্পিন করছিল। এ জন্যই পরিবর্তন। পুরোটাই কৌশলগত।'

আর উইকেট ও প্রতিপক্ষের বোলিং আক্রমণ বিবেচনায় লিটনের বদলে শান্তকে নিয়ে ওপেনিংয়ে নেমেছিলেন বলেছেন তামিম। অধিনায়ক জানিয়েছেন, সিদ্ধান্তটা এসেছিল লিটনের পক্ষ থেকেই, ‘আমি বলব ওটা ছিল লিটনের অসাধারণ একটা সিদ্ধান্ত। ফিল্ডিংয়ের শেষের দিকে ও এসে আমাকে বলল, “ভাই যদি আপনারা দুইজন ওপেন করেন তাহলে কেমন হয়?” বাঁহাতি বোলাররা ওদের অস্ত্র ছিল, এজন্যই তার এটা বলা। আমি মনে করি ওর সিদ্ধান্তটা অসাধারণ ছিল।’

বিজ্ঞাপন

শান্ত অবশ্য নিজের কাজটা পুরোপুরি করতে পারেননি। ৩৬ বলে ২০ রান করে বাজে শটে আউট হয়ে ফিরেছেন। তবে তামিম এই অবদানকে বড়ই মনে করছেন।

তামিম বলেন, ‘বল অনেক ঘুরছিল, ফলে ডানহাতিদের জন্য কঠিন হতো। আমি আর শান্ত (নাজমুল) উইকেটে গিয়ে আলোচনা করছিলাম, রান কম হলেও ক্ষতি নেই। ওদের ওভারগুলো (ওয়েস্ট ইন্ডিজের বাঁহাতি স্পিনার) শেষ হয়ে গেলেও আমাদের হাতে ৩০ ওভারের মতো থাকবে। আলহামদুলিল্লাহ আমাদের ৪৮ রানের একটা ভালো জুটি হয়েছে। ৪৮ রান দেখতে কম লাগতে পারে, তবে এই উইকেটে ৪৮–ই ১০০ রানের তো।’

বিজ্ঞাপন

অধিনায়কের কাছ থেকে বাহবাই পাাচ্ছেন শান্ত। তামিম বলেন, ‘শান্ত (নাজমুল) যতক্ষণ ব্যাটিং করেছে ভালো করেছে। এসব উইকেটে ব্যাটিং দেখে কিছু বিচার করা উচিত নয়। উইকেট খুবই কঠিন ছিল। মিরপুরের চেয়েও খারাপ উইকেট। এ উইকেটে কোন ডেলিভারিতে আউট হয়ে যাবেন, আপনি জানেন না। আসলে এখানে ১৫০ আর ২৫০-এর খেলা। (নাজমুল) যতক্ষণ ব্যাটিং করেছে ভালো করেছে।’

সারাবাংলা/এসএইচএস

বিজ্ঞাপন
বিজ্ঞাপন
বিজ্ঞাপন