বিজ্ঞাপন

বাঁশখালীতে পুলিশের গুলিতে নিহত শ্রমিকের সংখ্যা বেড়ে ৫

April 17, 2021 | 2:18 pm

স্পেশাল করেসপন্ডেন্ট

চট্টগ্রাম ব্যুরো: বাঁশখালী উপজেলার গণ্ডমারা এলাকায় পুলিশ-শ্রমিক সংঘর্ষে নিহতের সংখ্যা বেড়ে পাঁচজনে দাঁড়িয়েছে। তিন পুলিশসহ আহত অবস্থায় চিকিৎসাধীন আছেন অন্তত আরও ২১ জন। প্রাথমিকভাবে হতাহতদের নামপরিচয় জানা যায়নি।

বিজ্ঞাপন

শনিবার (১৭ এপ্রিল) সকালে উপজেলার গণ্ডামারা ইউনিয়নের পূর্ব বড়ঘোনা এলাকায় নির্মাণাধীন কয়লাভিত্তিক বিদ্যুৎকেন্দ্রের শ্রমিকরা বেতনভাতার দাবিতে বিক্ষোভ শুরু করলে এই সংঘর্ষের ঘটনা ঘটে। এতে ঘটনাস্থলেই চারজন নিহত হন।

বাঁশখালীতে পুলিশের গুলিতে নিহত শ্রমিকের সংখ্যা বেড়ে ৫

বিজ্ঞাপন

চমেক হাসপাতাল পুলিশ ফাঁড়ির পরিদর্শক জহিরুল ইসলাম ভুইয়া জানান, আহত অবস্থায় ১৩ শ্রমিক ও ৩ পুলিশ সদস্যকে চট্টগ্রাম মেডিক্যাল কলেজ হাসপাতালে নেওয়া হলে সেখানকার চিকিৎসকরা আরও এক শ্রমিককে মৃত ঘোষণা করেন। এই নিয়ে ওই ঘটনায় মোট পাঁচজনের প্রাণ গেল।

পুলিশের চট্টগ্রাম রেঞ্জের ডিআইজি আনোয়ার হোসেন সারাবাংলাকে বলেছেন, বেতন-ভাতা নিয়ে শ্রমিকদের সঙ্গে কর্তৃপক্ষের বিরোধ চলছিল। সকালে ১২ দফা দাবিতে শ্রমিকরা বিক্ষোভের চেষ্টা করলে পুলিশের সঙ্গে সংঘর্ষের ঘটনা ঘটে। এ সময় চার শ্রমিকের মৃত্যু হয়েছে বলে নিশ্চিত হয়েছি। আমি ঘটনাস্থলে যাচ্ছি।

বিজ্ঞাপন

বাঁশখালীতে পুলিশের গুলিতে নিহত শ্রমিকের সংখ্যা বেড়ে ৫

স্থানীয় সূত্র বলছে, সংঘর্ষের একপর্যায়ে পুলিশ গুলি চালায়। এতে কমপক্ষে ২৫ জনের মতো আহত হয়েছেন। হতাহতের সংখ্যা আরও বাড়তে পারে। এলাকায় পুলিশ মোতায়েন রয়েছে। বর্তমানে থমথমে পরিস্থিতি বিরাজ করছে।

বিজ্ঞাপন

২০১৬ সালের এপ্রিলে একই বিদ্যুৎকেন্দ্র নিয়ে স্থানীয় গ্রামবাসীর সঙ্গে পুলিশের সংঘাতে ছয়জন নিহত হন। বাঁশখালী ১৩২০ মেগাওয়াট কয়লাবিদ্যুৎ কেন্দ্র প্রকল্প বাস্তবায়নের কাজ করছে এস আলম গ্রুপ।

বিজ্ঞাপন

সারাবাংলা/আরডি/এএম

বিজ্ঞাপন
বিজ্ঞাপন
বিজ্ঞাপন