বিজ্ঞাপন

ইয়াবা পাচারকারী পুলিশ সদস্যের কারাদণ্ড

September 29, 2022 | 12:04 am

স্পেশাল করেসপন্ডেন্ট

চট্টগ্রাম ব্যুরো: চট্টগ্রামে চার বছর আগে ইয়াবাসহ গ্রেফতার এক পুলিশ কর্মকর্তাকে ১৫ বছরের সশ্রম কারাদণ্ড দিয়েছেন আদালত। একই রায়ে আদালত তাকে ৫০ হাজার টাকা অর্থদণ্ড অনাদায়ে আরও এক বছরের বিনাশ্রম কারাদণ্ড দিয়েছেন।

বিজ্ঞাপন

বুধবার (২৮ সেপ্টেম্বর) চট্টগ্রামের সপ্তম অতিরিক্ত জেলা ও দায়রা জজ আ স ম শহীদুল্লাহ কায়সার এ রায় দেন।

দণ্ডিত পুলিশ সদস্য আবুল বাশার ব্রাহ্মণবাড়িয়া পুলিশ লাইনে সহকারী উপ-পরিদর্শক (এএসআই) হিসেবে সংযুক্ত ছিলেন।

বিজ্ঞাপন

মামলার নথিপত্র পর্যালোচনায় জানা যায়, ২০১৮ সালের ১৮ আগস্ট প্রায় ৩২ হাজার ইয়াবাসহ আবুল বাশারকে র‌্যাব-৭ এর একটি দল মীরসরাই উপজেলার জোরারগঞ্জ থানার বারইয়ারহাট বাসস্ট্যান্ড এলাকায় ঢাকা-চট্টগ্রাম মহাসড়ক থেকে গ্রেফতার করে। র‌্যাবের ভাষ্য অনুযায়ী, বাশার ব্রাহ্মণবাড়িয়া জেলা গোয়েন্দা পুলিশে কর্মরত ছিলেন। ২০১৮ সালের ২৬ মার্চ একই জেলার শশীদলে মদ্যপ অবস্থায় অবৈধ মোটরসাইকেলসহ বিজিবি সদস্যদের হাতে আটক হন। এরপর তাকে সাময়িক বরখাস্ত করা হয়। এর মধ্যেই বাশার ইয়াবা পাচারে জড়িয়ে পড়েন।

ইয়াবাসহ আটকের পর তার বিরুদ্ধে র‌্যাবের পক্ষ থেকে জোরারগঞ্জ থানায় মামলা দায়ের করা হয়। মামলাটি তদন্ত করে ২০১৯ সালের ৬ জানুয়ারি আদালতে অভিযোগপত্র জমা দেয় পুলিশ। ওই বছরের ১৪ ফেব্রুয়ারি আদালত অভিযোগ গঠন করে বিচার শুরুর আদেশ দেন। রাষ্ট্রপক্ষের ১২ জন সাক্ষীর সাক্ষ্যগ্রহণ করা হয়। রায় ঘোষণার সময় আসামি আদালতে উপস্থিত ছিলেন। পরে তাকে আদালতের নির্দেশে কারাগারে পাঠানো হয়।

বিজ্ঞাপন

সংশ্লিষ্ট আদালতের অতিরিক্ত পিপি স্বরূপ পাল জানিয়েছেন, মাদকদ্রব্য নিয়ন্ত্রণ আইনের ১৯ (১) এর ৯(খ) ধারায় আদালত তাকে সাজা দিয়েছেন।

সারাবাংলা/আরডি/পিটিএম

বিজ্ঞাপন
বিজ্ঞাপন
বিজ্ঞাপন