রবিবার ১৬ জুন, ২০১৯ ইং , ২ আষাঢ়, ১৪২৬ বঙ্গাব্দ, ১২ শাওয়াল, ১৪৪০ হিজরী

বিজ্ঞাপন

এমপিওভুক্তির দ্বার খুলছে, বরাদ্দ বাড়ল শিক্ষাখাতে

জুন ১৩, ২০১৯ | ৫:৫৫ অপরাহ্ণ

স্পেশাল করেসপন্ডেন্ট

ঢাকা: দীর্ঘদিন বন্ধ থাকা এমপিওভুক্তি কার্যক্রম ফের চালু হতে যাচ্ছে। এ জন্য ২০১৯-২০২০ অর্থ বছরের জাতীয় বাজেটে প্রয়োজনীয় অর্থ বরাদ্দ রাখা হয়েছে।

বৃহস্পতিবার (১৩ জুন) জাতীয় সংসদে ২০১৯-২০২০ অর্থবছরের জাতীয় বাজেট বক্তৃতায় এ তথ্য জানানো হয়। অর্থমন্ত্রী আ হ ম মুস্তফা কামাল অসুস্থ থাকায় প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা নিজেই বাজেট বক্তৃতা পড়েন।

বাজেট বক্তৃতায় জানানো হয়, নানাবিধ কারণে এমপিওভুক্তি কার্যক্রম বন্ধ ছিল। শিক্ষা মন্ত্রণালয়ের দাবির পরিপ্রেক্ষিতে প্রধানমন্ত্রীর নির্দেশে এমপিওভুক্তি কর্যক্রমের জন্য অর্থের যোগান রাখা হয়েছে।

এবারের বাজেটে শিক্ষাখাতে মোট বরাদ্দ রাখার প্রস্তাব করা হয়েছে ৮৭ হাজার ৬২০ কোটি টাকা, যা মোট বাজেটের ১৬.৭৫ শতাংশ এবং জিডিপির ৩.০৪ শতাংশ।

বিজ্ঞাপন

এরমধ্যে প্রাথমিক শিক্ষাখাতে বরাদ্দ রাখার প্রস্তাব করা হয়েছে ২৪ হাজার ৪০ কোটি টাকা, যা গত বাজেটে ছিল ২০ হাজার ৫২১ কোটি টাকা। মাধ্যমিক ও ‍উচ্চ শিক্ষাখাতে বরাদ্দ রাখার প্রস্তাব করা হয়েছে ২৯ হাজার ৬২৪ কোটি টাকা, যা গত বাজেটে ছিল ২৫ হাজার ৮৬৬ কোটি টাকা, কারিগরি ও মাদরাসা শিক্ষাখাতে বরাদ্দ রাখার প্রস্তাব করা হয়েছে ৭ হাজার ৪৫৪ কোটি টাকা, যা গত বাজেটে ছিল ৫ হাজার ৭৫৮ কেটি টাকা।

বাজেটের এ অর্থ ব্যয়ের মাধ্যমে শিক্ষা ও প্রশিক্ষণ সংক্রান্ত সকল কার্যক্রম বাস্তবায়ন করবে গণপ্রজাতন্ত্রী বাংলাদেশ সরকারের ২৮টি মন্ত্রণালয় ও বিভাগ।

বাজেট বক্ততায় অর্থমন্ত্রী বলেন, ‘আমাদের প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা শিক্ষাকে সর্বাধিক গুরুত্ব প্রদান করেছেন। দক্ষ জনশক্তি তৈরির উদ্দেশ্যে শিক্ষার সার্বিক মানোন্নয়ন, শিক্ষাক্ষেত্রে বৈষম্য দূরীকরণ, গুণগত উৎকর্ষ সাধান ও শিক্ষা সম্প্রসারণের লক্ষ্য নির্ধারিত হয়েছে।’

তিনি বলেন, ‘এখন আমাদের ছাত্র/ছাত্রীর ঘাটতি নেই। ঘাটতি দেখা দিয়েছে উপযুক্ত এবং প্রশিক্ষিত শিক্ষকের। প্রাথমিক স্তর থেকে শিক্ষার সর্বস্তরে উপযুক্ত এবং প্রশিক্ষিত শিক্ষকের কাছে শিক্ষা ব্যবস্থা হস্তান্তর করতে চাই।’

সারাবাংলা/এজেড/একে

বিজ্ঞাপন
বিজ্ঞাপন