বিজ্ঞাপন

করোনায় আক্রান্ত বুদ্ধদেব গুহ আইসোলেশনে

April 25, 2021 | 1:39 am

সারাবাংলা ডেস্ক

করোনাভাইরাসে আক্রান্ত হয়েছেন প্রখ্যাত কথাসাহিত্যিক বুদ্ধদেব গুহ। একটি হোটেলে আইসোলেশনে রয়েছেন তিনি। তার বড় মেয়ে ও গাড়িচালকও আক্রান্ত হয়েছেন এই ভাইরাসে।

বিজ্ঞাপন

ভারতীয় গণমাধ্যম আনন্দবাজারের খবর বলছে, ৮৬ বছর বয়সী বুদ্ধদেব গুহ ঠান্ডার সমস্যায় ভুগছেন। বুকে সর্দি বসেছে, সঙ্গে কাশিও আছে। তিন-চার দিন ধরে নিউমোনিয়ার মতো লক্ষণ দেখা যাচ্ছে। তবে এখনো স্বাদ-গন্ধ পাচ্ছেন তিনি।

বড় মেয়ে ও গাড়িচালকেরও করোনায় আক্রান্ত হওয়া নিয়ে উদ্বেগের মধ্যে দিন কাটছে বুদ্ধদেব গুহ’র। নিজের দৃষ্টিশক্তির সমস্যা অনেক আগে থেকেই। ভোগাচ্ছে সেটিও। তবে করোনাভাইরাসের কাছে হার মানতে নারাজ ‘মাধুকরী’র স্রষ্টা। করোনার কবল থেকে ঠিক ফিরে আসবেন বলেই প্রত্যয় তার কণ্ঠে।

বিজ্ঞাপন

করোনায় আক্রান্ত বুদ্ধদেব গুহ আইসোলেশনে

ভারতীয় আরও অনেক সাহিত্যিকের মতোই বুদ্ধদেব গুহ’র জন্মও বাংলাদেশে। ১৯৩৬ সালে বাংলাদেশের এখনকার রংপুরে জন্ম তার। তার লেখালেখির সিংহভাগই দখল করে রেখেছে প্রাণ ও প্রকৃতি। তার আলোচিত উপন্যাসের মধ্যে রয়েছে— ‘মাধুকরী’, ‘কোজাগর’, ‘অববাহিকা’, ‘বাবলি’, ‘ছৌ’, ‘একটু উষ্ণতার জন্য’। ‘ওয়াইকিকি’র মতো থ্রিলারও লিখেছেন তিনি।

বিজ্ঞাপন

বুদ্ধদেব গুহ’র অন্যতম অনন্য এক সৃষ্টির নাম ঋজু বোস ওরফে ঋজুদা। রুদ্র, তিতির ও ভটকাইকে সঙ্গে নিয়ে জল-জঙ্গলে নানা ধরনে অ্যাডভেঞ্চারের কাহিনী সব বয়সী পাঠককে মুগ্ধ করেছে, আগ্রহী করে তুলেছে প্রাণ-প্রকৃতির সঙ্গে একাত্ম হতে। ১৯৭৩ সাল থেকে শুরু করে ঋজুদাকে নিয়ে ৪০টিরও বেশি কাহিনী লিখেছেন বুদ্ধদেব।

বুদ্ধদেবের করোনায় আক্রান্ত হওয়ার খবর এমন একসময়ে এলো, যখন বাঙালি করোনার ছোবলে শঙ্খ ঘোষকে হারানোর শোক কাটিয়ে উঠতে পারেনি। মাত্র দুই দিন আগে বুধবার (২১ এপ্রিল) অনন্তলোকে যাত্রা করেছেন জীবনানন্দ দাশ পরবর্তী বাংলা কবিতার অন্যতম কণ্ঠস্বর শঙ্খ ঘোষ। শঙ্খ ঘোষেরই সমসাময়িক বুদ্ধদেব গুহকে নিয়েও তাই শঙ্কা থেকেই যাচ্ছে।

বিজ্ঞাপন

সারাবাংলা/টিআর

বিজ্ঞাপন
বিজ্ঞাপন
বিজ্ঞাপন